22.1 C
Toronto
সোমবার, মে ২০, ২০২৪

মেসিকে ‘শয়তান’ বলার পর ক্ষমা চাইলেন কোচ

মেসিকে ‘শয়তান’ বলার পর ক্ষমা চাইলেন কোচ
লিওনেল মেসি

গত ৫ এপ্রিল কনক্যাকাফ চ্যাম্পিয়নস কাপের শেষ আটের ম্যাচে মন্টেরেরকে আতিথেয়তা দিয়েছিল ইন্টার মায়ামি।

সেদিন লিওনেল মেসিদের ইন্টার মিয়ামিকে ২-১ গোলে হারায় মন্টেরে। সেই ম্যাচে খেলেননি মেসি। অথচ মেসিকে ‘বামনটি ছিল, শয়তানের মুখ’ নিয়ে বলে সম্বোধন করেছিলেন মন্টেরের সহকারী কোচ নিকো সানচেজ।

- Advertisement -

এ জন্য মেক্সিকোর ক্লাব মন্টেরের ড্রেসিংরুমে গিয়ে চিৎকার করেছেন ইন্টার মিয়ামির তারকা জর্দি আলবা, লুইস সুয়ারেজ এবং কোচ জেরার্দো মার্তিনো।

মেসিকে ‘বামন’ বলার অডিও ফাঁস হওয়ায় গতকাল সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ক্ষমা চেয়েছেন মন্টেরের সহকারী কোচ সানচেজ। অবশ্য ক্ষমা চাওয়ার ভিডিওতে একবারের জন্যও মেসির নাম উচ্চারণ করেননি তিনি।

তিনি বলেছেন, ‘বামনটি ছিল, শয়তানের মুখ নিয়ে। সে আমার মুখের পাশে মুষ্টিবদ্ধ হাত রেখে বলে, আপনি নিজেকে কী মনে করেন? তবে আমি তার দিকে তাকাইনি, আমার দৃষ্টি ছিল দূরে। আমি কখনো উত্তর দিইনি। পরিস্থিতি খারাপ হয়ে গিয়েছিল।’

সানচেজের ভিডিওটি ফাঁস করে ফক্স স্পোর্টস এমএক্স। ভিডিওতে মন্টেরের সহকারী কোচ বলেছেন, ‘টাটা মার্তিনো, কী দরিদ্র এক পুতুল। তাকে সামনে পেয়ে বলেছিলাম, বোকা, তুমি কাঁদবে? বোকা, তুমি কাঁদবে? কী দারুণ এক পুতুল!’

সামাজিক মাধ্যমে পোস্ট করা ভিডিওতে মেসির কাছে ক্ষমা না চাইলেও মার্তিনোর কাছে চেয়েছেন সানচেজ। তিনি বলেছেন, ‘যেহেতু আমি জেরার্দো মার্তিনেজকে চিনি না তাই অসম্মানজনক আচরণ করেছি। এর জন্য ক্ষমা চাচ্ছি। আমিও তাদের মতোই একজন আর্জেন্টাইন। আর সব সময় চাইব ক্লাবের পাশে থাকতে। কারণ এখানে আমি দায়িত্ব নিতে এসেছি।’

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles