23.6 C
Toronto
শুক্রবার, জুন ২১, ২০২৪

বৈষম্যহীন আইনের শাসন

বৈষম্যহীন আইনের শাসন
কেন ফি বছর এত ভারতীয় দেশত্যাগী হচ্ছেন নরেন্দ্র মোদির নতুন ভারতও কেন নাগরিকদের ধরে রাখতে পারছে না তার কারণ একাধিক

‘২০২২ সালে—২ লাখ ২৫ হাজার ৬২০ জন মানুষ ভারতের নাগরিকত্ব ছেড়ে বিদেশের নাগরিকত্ব গ্রহণ করেছেন। পৃথিবীর মোট ১১৪টি দেশ ভারতীয়দের গন্তব্য হলেও যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা, অস্ট্রেলিয়া ও যুক্তরাজ্যের আকর্ষণ সবচেয়ে বেশি।

কেন ফি বছর এত ভারতীয় দেশত্যাগী হচ্ছেন, নরেন্দ্র মোদির ‘নতুন ভারত’ও কেন নাগরিকদের ধরে রাখতে পারছে না, তার কারণ একাধিক। উন্নত জীবনযাত্রা, শিক্ষা, চাকরির সুযোগ-সুবিধা, উপযুক্ত স্বাস্থ্য পরিষেবাসহ সামাজিক নিরাপত্তা এবং বৈষম্যহীন আইনের শাসন যুব সম্প্রদায়কে আকর্ষণ করছে।’

- Advertisement -

দৈনিক প্রথম আলোর এই রিপোর্টের সবচেয়ে শেষ লাইনটি সবচেয়ে বেশী গুরুত্বপূর্ণ। সেটি হলো, “বৈষম্যহীন আইনের শাসন”।

এইসব দেশে রাজনৈতিক দলের সদস্য বিবেচনায় পুলিশ কিংবা সরকারী চাকুরীতে নিয়োগ দেয়া হয় না। তাঁদেরও পুলিশ ভেরিফিকেশন হয়, ব্যাকগ্রাউন্ড চেক হয়। সেগুলো অপরাধ সংক্রান্ত, আওয়ামী লীগ বিএনপি বা লিবারেল কনজারভেটিভ বিবেচনায় নয়। এইসব দেশে সরকারী চাকুরীতে নিয়োগের আগে কখনোই দেখা হয় না যে আপনি ছাত্র থাকাকালীন কোন নেতার নামে জয়ধ্বনি কিংবা জিন্দাবাদ দিয়েছেন। অপরাধ করে কেউ গ্রেফতার হলে সরকারী দলের বা বিরোধী দলের পরিচয় দেখে গ্রেফতার কিংবা জামিন দেয়া হয়েছে তা আমার বিগত ত্রিশ বছরের প্রবাস জীবনে দেখি নি। এটাই হলো বৈষম্যহীন আইনের শাসন। যে কারণে হয়তো এখনো অনেকেই দেশ ছেড়ে চলে যেতে চায়!

বাংলাদেশে বিগত বায়ান্ন বছরে কখনো এই আলাপ চোখে পড়ে নি। আপনার পড়েছে কি?
স্কারবোরো, কানাডা

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles