26.1 C
Toronto
শনিবার, জুলাই ১৩, ২০২৪

কাবিননামা মার্চেই টুকরো টুকরো করেছে রাজ: পরীমণি

কাবিননামা মার্চেই টুকরো টুকরো করেছে রাজ: পরীমণি
বাম থেকে পরীমণি ও শরিফুল রাজ

‘আর না, অনেক হয়েছে। এবার টোটালি ফুলস্টপ। কার সঙ্গে ঘর করবো? ঘর করার তো আর কিছুই নাই। ইচ্ছে থাকলেওতো আর হচ্ছে না। যার সাথে ঘর করবো সেইতো নেই।’- রাজের সঙ্গে সংসার ইস্যুতে জানতে চাইলে রবিবার সন্ধ্যায় বাংলাদেশ প্রতিদিনের কাছে এভাবেই নিজের ক্ষোভ প্রকাশ করেন পরীমণি।

গত কয়েকদিন ধরে সংসারে বিদ্যমান নানা ইস্যুতে মিডিয়া পাড়ায় আবারও আলোচনায় উঠে এসেছেন এই লস্যময়ী। কিন্তু এ সংসার নিয়ে আর তিনি এগোতে চান না, এমনটাই জানালেন পরী।
পরীমণি বলেন, অনেক চেষ্টা করেছি রাজের সঙ্গে এক ছাদের নিচে থাকতে। কিন্তু তা আর হলো না। এরপরও আমি তাকে ধরে রাখার চেষ্টা করেছি, হাত-পা ধরেছি। কিন্তু রাজ আমার সাথে থাকতে চায় না। যাওয়ার আগে আমার চরিত্র নিয়ে কথা বলে গেছে। আমাকে নিয়ে যে কথাগুলো তুললো, তার প্রমাণ যেন অবশ্যই সে দেয়।

- Advertisement -

পরীমণি আরো বলেন, আপনারা হয়তো জানেন না, গত মার্চের শেষ সপ্তাহে আমাদের বিয়ের কাবিননামা ছিঁড়ে ফেলে রাজ। শুধু ছেঁড়া বললে ভুল হবে, ছিঁড়ে টুকরো টুকরো করে ফেলে। তখন সে বলেছিল, এ বিয়ে সে মানে না। আপনারাই বলুন কি হস্যকর একটা কথা। কাবিনামা ছিঁড়লেই কি বিয়ে ভেঙে যায়। এতো কিছুর পরেও আমি তার সঙ্গে কন্টিনিউ করার চেষ্টা করেছি।

পরীমণি বলেন, এটা সত্যি আমার আতীত খুব একটা সুখকর না। এতো কিছুর পরেও আমি রক্ত মাংসের মানুষ। অন্তত, সন্তানের মুখের দিকে চেয়েও সংসারের প্রতি আস্থা রেখেছিলাম। সেটাও আর হয়ে উঠলো না।

এছাড়া এই ইস্যু ঘিরে আবারও নতুন কোনো ইস্যু বা খবরের খোরাক হতে চান না পরীমণি। তাই তিনি বলেন, সম্প্রতি রাজের সঙ্গে আমাকে ঘিরে অনেক পোর্টাল বা ইউটিউবার নানা রকম আপত্তিকর শিরোনামে খবর ছড়াচ্ছেন। মনে হচ্ছে তারাও চাচ্ছেন আমাদের এই ইস্যুটা দীর্ঘায়িত হোক। এছাড়া কেউ কেউ আবার রাজের কাঁধে বন্দুক রেখে আমাকে নিয়েও মন্তব্য করে যাচ্ছেন। অথচ তারাও কিন্তু এই মিডিয়ার লোক। মনে হচ্ছে আমার এই ইস্যুকে পুজি করে তারাও লাইমলাইটে আসার চেষ্টা করছেন।

যেহেতু ফুলস্টপ বললেন, তাহলে কি সত্যি সত্যি আর এই সম্পর্ক নিয়ে এগোবেন না? এমনটা জানতে চাইলে পরীমণি বলেন, হ্যা সত্যি তার সাথে আর সংসার করার কোনো ইচ্ছে নেই। ইচ্ছে থাকলেও তো আর হচ্ছে না। যার সাথে ঘর করবো সেইতো নেই। আপাতত এতটুকুই বলতে পারি- সে চলবে তার পথে, আমি চলবো আমার পথে। এই ইস্যু নিয়ে আমিও আর কথা বলতে চাই না। প্লিজ আপনারাও এই বিষয়টাকে আর দীর্ঘায়িত করবেন না। উত্তরতো পেয়েই গেলেন। আমরা আর একসাথে থাকবো না।

উল্লেখ্য, গত ২৯ মে মধ্যরাতে শরিফুল ইসলাম রাজের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে কিছু ব্যক্তিগত ছবি ও ভিডিও ক্লিপ ফাঁস হওয়ার পর থেকে পরীর সঙ্গে জটিলতা প্রকাশ্যে এসেছে। এ নিয়ে গণমাধ্যমে পাল্টাপাল্টি বক্তব্য দিয়েছেন তারা। নতুন করে প্রকাশ্যে আসে শরিফুল রাজ ও পরীমণির দাম্পত্য জীবনের কলহ।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles