23.9 C
Toronto
মঙ্গলবার, মে ২১, ২০২৪

পণ্যের ইউনিপ্রতি মূল্যবৃদ্ধিতে উদ্বিগ্ন কানাডিয়ানরা

পণ্যের ইউনিপ্রতি মূল্যবৃদ্ধিতে উদ্বিগ্ন কানাডিয়ানরা
গ্রোসারি স্টোরগুলোতে মোড়কজাত পণ্যের ক্ষেত্রে প্যাকেটের আকার ছোট হচ্ছে আপনি একা নন সব কানাডিয়ানই এটা প্রত্যক্ষ করছেন সাম্প্রতিক এক সমীক্ষা বলছে ইউনিটপ্রতি পণ্যের মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে উদ্বেগ রয়েছেন সিংহভাগ কানাডিয়ান

গ্রোসারি স্টোরগুলোতে মোড়কজাত পণ্যের ক্ষেত্রে প্যাকেটের আকার ছোট হচ্ছে। আপনি একা নন, সব কানাডিয়ানই এটা প্রত্যক্ষ করছেন। সাম্প্রতিক এক সমীক্ষা বলছে, ইউনিটপ্রতি পণ্যের মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে উদ্বেগ রয়েছেন সিংহভাগ কানাডিয়ান।

ইপসস ১৯ থেকে ২০ এপ্রিল পর্যন্ত গ্লোবাল নিউজের জন্য সমীক্ষাটি পরিচালনা করে। মোট এক হাজার কানাডিয়ানের ওপর সমীক্ষাটি চালানো হয়। তাতে দেখা যায়, পণ্যের ইউনিটপ্রতি মূল্যবৃদ্ধিতে উদ্ব্গে প্রকাম করেছেন সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ৮৪ শতাংশ কানাডিয়ান। অর্থাৎ, একদিকে পণ্যের মোড়কের আকার ছোট হওয়া, অন্যদিকে মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে উদ্বিগ্ন তারা।

- Advertisement -

সমীক্ষায় অংশ নেওয়া প্রতি পাঁচজনের মধ্যে একজন বলেছেন, গ্রোসারি পণ্যের জন্য তারা ছয় মাস আগের তুলনায় সপ্তাহে ১০০ ডলারের বেশি অতিরিক্ত ব্যয় করছেন। অর্থাৎ, ১০০ ডলার অতিরিক্ত ব্যয় করার কথা জানিয়েছেন সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ২১ শতাংশ কানাডিয়ান। ১০১ থেকে ১০৫ ডলার বাড়তি ব্যয়ের কথা জানিয়েছেন ৬ শতাংশ। এ ছাড়া ১৫১ থেকে ২০০ ডলার অতিরিক্ত ব্যয় করতে হচ্ছে জানিয়েছেন ৭ শতাংশ এবং ২০০ ডলারের বেশি বাড়তি ব্যয়ের কথা জানিয়েছেন ৮ শতাংশ কানাডিয়ান।

গ্রোসারি পণ্য বাবদ সপ্তাহে ৫১ থেকে ১০০ ডলার অতিরিক্ত ব্যয় করতে হচ্ছে বলে জানিয়েছেন সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ২৩ শতাংশ কানাডিয়ান। ৫০ ডলার পর্যন্ত অতিরিক্ত ব্যয়ের কথা জানিয়েছেন ৩৮ শতাংশ কানাডিয়ান। তবে গ্রোসারি পণ্য বাবদ ব্যয়ে কোনো পরিবর্তন আসেনি বলে জানিয়েছেন সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ১৮ শতাংশ কানাডিয়ান। এ হিসাবে ৮২ শতাংশ কানাডিয়ানই গ্রোসারি পণ্য বাবদ ব্যয় ছয় মাস আগের তুলনায় বৃদ্ধি পেয়েছে বলে জানিয়েছেন।

ইপসসের সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ৫৫ শতাংশ কানাডিয়ান তাদের পরিবারের সদস্যদের মুখে খাবার তুলে দিতে পারবেন না বলে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। যাদের ঘরে শিশু রয়েছে তাদের ক্ষেত্রে এ হার আরও বেশি ৬৮ শতাংশ।
মূল্যবৃদ্ধি কানাডিয়ানদের পণ্য ক্রয়ের ধরনও বদলে দিয়েছে। ২৯ শতাংশ কানাডিয়ান তাজা ফলমূল কেনা কমিয়ে দিয়েছেন বলে জানিয়েছেন। ২০২২ সালের নভেম্বরে এ হার ছিল ২৬ শতাংশ। প্রতি দশজনের মধ্যে তিনজন মাংস খাওয়া কমিয়ে দেওয়ার কথা জানিয়েছেন। নভেম্বরের চেয়ে এ হার সামান্য বেশি।

গ্রোসারি ব্যয় সপ্তাহে ১০০ ডলার বেড়ে যাওয়ার কথা যারা জানিয়েছেন তাদের বেশিরভাগের বয়স ১৮ থেকে ৩৪ বছর। তাদের হার প্রায় ৩০ শতাংশ। একই মত জানানো ৩৫ থেকে ৫৪ বছর বয়সীদের মধ্যে এ হার ১৮ শতাংশ।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles