বাসের চালক ছাত্রীকে বলতে লাগলো, তোরে একা পাইলে…

- Advertisement -
ফাইল ছবি

হাফ ভাড়া দেওয়ায় বেগম বদরুন্নেসা সরকারি কলেজের এক ছাত্রীকে বাসের চালক এবং হেলপার প্রকাশ্যে ধর্ষণের হুমকির রেশ কাটতে না কাটতেই ইডেন মহিলা কলেজের আরেক ছাত্রীকে একই হুমকি দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় ওই ছাত্রী নারীদের অধিকার নিয়ে কাজ করা জাস্টিস ফর উইমেন বাংলাদেশ এর কাছে অভিযোগ করেও সমাধান পাননি। এ নিয়ে সাত কলেজের ফেসবুক গ্রুপে অসন্তোষ ও উত্তেজনা দেখা দিয়েছে।

- Advertisement -

ওই ছাত্রী বলেন, সোমবার ঢাকা কলেজে আমার পরীক্ষা ছিলো। যেটি ছিলো সম্মান ৩য় বর্ষের শেষ পরীক্ষা। পরীক্ষা শেষ করে যখন আনসার ক্যাম্পে (মিরপুর-১) নেমে পড়ি। নামার পর রাস্তা পার হই। এ সময় আমি ‘পরিস্থান পরিবহন লিমিটেড’ নামে একটি চলন্ত বাস অতিক্রম করি। রাস্তা পার হওয়ার পর আমি আইল্যান্ডে দাঁড়াই। ইতোমধ্যে বাসও আমাকে ক্রস করে।একটু পর আমার অদূরে বাসটি গতি কমিয়ে দাঁড়ায়। এসময় আমি ছাড়াও একটু দূরে একটা ছেলে ছিলো। হঠাৎ বাসের চালক জানালা দিয়ে মাথা বের করে বলতে লাগলো, তোরে একা পাইলে…। চালক কয়েকবার একই কথা বলতেই লাগলো। কিছু বুঝে ওঠার আগেই বাসটি গতি বাড়িয়ে চলে গেল।

তিনি আরও বলেন, আমি বাসের নাম্বারটা নোট করে রাখি।

- Advertisement -

আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহীনির সাহায্য কেন নেননি জানতে চাইলে এই শিক্ষার্থী জানান, আমি পরীক্ষা দিয়েই ফিরছিলাম। ৯৯৯ এ কল দেওয়ার চিন্তা করেছিলাম। কিন্তু আমার কাছে মোবাইল ছিল না। পশেও লোক ছিল না।

- Advertisement -

থানার অভিযোগ না করার বিষয়ে জানতে চাইলে এই শিক্ষার্থী জানায়, আমি থানায় অভিযোগ করিনি। বাসায় এসে বন্ধুদের সঙ্গে আলাপ করি। আমি বিষয়টি মেনে নিতে পারছিলাম না। আমি কোনো কিছুই ওনাকে করিনি। ভাড়া নিয়েও কিছু হয়নি। যেহেতু এ বাসে আমি যাতায়াতও করিনি। আমাদের ক্যাম্পাসের রুটেরও বাস ‘পরিস্থান’ নয়। পরে আমি নেট ঘাঁটাঘাঁটি ‘জাস্টিস ফর উইমেন বাংলাদেশ’র কাছে অভিযোগ করি। আমি তাদের মেসেঞ্জারে লিখিত অভিযোগ জানাই। এর র তাদের নাম্বারে ফেন আবারও অভিযোগ করি। কিন্তু সহযোগিতা পাইনি।

তবে এ বিষয়ে জাস্টিস ফর উইমেন এর কারো মন্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles