9.6 C
Toronto
বুধবার, ফেব্রুয়ারি ২৮, ২০২৪

প্যানিক অ্যাটাক ও হার্ট অ্যাটাকের পার্থক্য কি, কীভাবে নিয়ন্ত্রণ করবেন?

প্যানিক অ্যাটাক ও হার্ট অ্যাটাকের পার্থক্য কি, কীভাবে নিয়ন্ত্রণ করবেন?

বর্তমানে মানুষ তাদের পরিবর্তনশীল ও খাপছাড়া জীবনধারার কারণে অনেক রোগের শিকার হচ্ছে। গত কয়েক বছরে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েছে। আগে যেখানে বয়স্করা হার্ট অ্যাটাকের সমস্যায় পড়তেন, সেখানে এখন কম বয়সীরাও হৃদরোগে আক্রান্ত হচ্ছে। হার্ট অ্যাটাকের পাশাপাশি বাড়ছে প্যানিক অ্যাটাকের সমস্যাও।

- Advertisement -

বিশেষজ্ঞদের মতে, প্যানিক অ্যাটাক হার্ট অ্যাটাকের মতোই বিপজ্জনক। অনেক সময় এই দুই ধরনের অ্যাটাককে একই রকম ভাবা হয়। যার কারণে রোগী বুঝতে পারে না তার কী হচ্ছে এবং কী করা উচিত।

হার্ট অ্যাটাক কী?
মানুষের হৃৎপিণ্ডে রক্ত সরবরাহকারী ধমনীতে বাধা সৃষ্টি হলে বা ধমনী ১০০% অবরুদ্ধ হয়ে গেলে সেই ক্ষেত্রে একজন ব্যক্তির হার্ট অ্যাটাক হয়। হার্ট অ্যাটাকের ঠিক আগে একজন ব্যক্তির অনেক ধরনের উপসর্গ দেখা যায়। এর মধ্যে বুকে ব্যথা বা বুকে ভারী ভাব অনুভূত হওয়া সবচেয়ে সাধারণ লক্ষণ। এছাড়া শ্বাসকষ্ট, ঘাম বা বমি হওয়া সাধারণ লক্ষণ। এই লক্ষণগুলো অবিলম্বে বা কয়েক ঘণ্টা পরে প্রদর্শিত হয়।

আরও পড়ুন :: যেসব পুষ্টির অভাবে হতে পারে হার্ট অ্যাটাক

প্যানিক অ্যাটাক কী?
বিশেষজ্ঞদের মতে, প্যানিক অ্যাটাক হলো এক ধরনের দুশ্চিন্তা, যা খুব গুরুতর হওয়ার পাশাপাশি হঠাৎ করেই তৈরি হয়। প্যানিক অ্যাটাকের সময় হৃদস্পন্দন বেড়ে যায়। সেই সঙ্গে শ্বাসকষ্ট, মাথা ঘোরা এবং শরীর কাঁপানো ইত্যাদি লক্ষণ দেখা দেয়।

সাধারণ লক্ষণ
স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, হার্ট অ্যাটাক এবং প্যানিক অ্যাটাকের ক্ষেত্রে বুকে ব্যথা, শ্বাস নিতে অসুবিধা এবং ঘামের মতো লক্ষণ দেখা যায়।

হার্ট অ্যাটাক এবং প্যানিক অ্যাটাকের মধ্যে পার্থক্য
যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, প্যানিক অ্যাটাক যে কোনও সময় আসতে পারে। বিশ্রাম নেওয়া বা ঘুমানোর সময়ও হতে পারে। অন্যদিকে হার্ট অ্যাটাক হয় যখন আপনি খুব বেশি কাজ করেন। এটি শুধু বুক পর্যন্ত থাকে না, অনেকের এই ব্যথা হাত ও ঘাড় পর্যন্ত পৌঁছায়।

হার্ট অ্যাটাক এবং প্যানিক অ্যাটাক নিয়ন্ত্রণের উপায়
আপনি যদি হঠাৎ বুকে ব্যথা অনুভব করেন, যা দুই থেকে তিন মিনিটের বেশি স্থায়ী হয় এবং ব্যথা অন্যান্য অঙ্গে ছড়িয়ে পড়ে, তাহলে আপনার অবিলম্বে একজন চিকিৎসকের সঙ্গে যোগাযোগ করা উচিত।

হার্ট অ্যাটাকের ক্ষেত্রে যে কোনও ধরনের বিলম্ব মারাত্মক হতে পারে। আপনি যদি বারবার প্যানিক অ্যাটাকের মধ্য দিয়ে যান, সঠিক চিকিৎসা করান। উপসর্গ নিয়ন্ত্রণে আপনাকে কিছু ওষুধ দেওয়া হতে পারে।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles