3.6 C
Toronto
রবিবার, এপ্রিল ২১, ২০২৪

পরকীয়া প্রেমিককে পালিয়ে বিয়ে, বিচ্ছেদের পরদিনই ফের পালালেন গৃহবধূ!

পরকীয়া প্রেমিককে পালিয়ে বিয়ে, বিচ্ছেদের পরদিনই ফের পালালেন গৃহবধূ!
গৃহবধূ ও আবু সামহা

তিন সন্তান ও স্বামীকে রেখে পরকীয়া প্রেমিকের সঙ্গে চলে গিয়েছিলেন গৃহবধূ। পরে তাকে বিয়েও করেন। দুই মাস একসঙ্গে থেকে স্বামী-সন্তানদের কাছে ফিরে আসেন। পালিয়ে যাওয়া ব্যক্তির সঙ্গে বিয়ে বিচ্ছেদও করেন। কিন্তু তার পরের দিন ফের সেই পরকীয়া প্রেমিকের সঙ্গে পালিয়ে গেছেন ওই নারী।

সম্প্রতি এমনঘটনা ঘটেছে নাটোরের গুরুদাসপুর উপজেলার ধারাবাড়িষা ইউনিয়নের শিধুলি গ্রামে।

- Advertisement -

স্থানীয়রা জানান, গত ২০ অক্টোবর পরকীয়া প্রেমিক ব্যবসায়ী আবু সামহাকে বিয়ে করেন ওই গৃহবধূ। বিয়ের পর দুই মাস স্ত্রীকে আত্মগোপনে রাখেন আবু সামহা। গত ২০ ডিসেম্বর সন্তানদের দেখতে ফিরে আসেন ওই গৃহবধূ। এর তিন দিন পর আবু সামহাকে ডিভোর্স দেন তিনি। কিন্তু পরের দিন আবারও স্বামী-সন্তানদের রেখে আবু সামহার সঙ্গে পালিয়ে যান।

ওই গৃহবধূর প্রথম স্বামী বলেন, ‘গত ২০ ডিসেম্বর সে সন্তানদের টানে ফিরে আসে এবং আমাকে আবারও বিয়ে করার প্রতিশ্রুতি দেয়। এরপর আমার কাছ থেকে ৪০ হাজার টাকা নেয়। ১৩ হাজার টাকা দিয়ে একটি মোবাইল কেনে এবং আবু সামহাকে ডিভোর্স দেয়। কিন্তু পরের দিন আবার আবু সামহার কাছে ফিরে যায়।’

এ বিষয়ে গৃহবধূ বলেন, ‘আমি চাপে আবু সামহাকে ডিভোর্স দিই। আর পরদিন আবারও আবু সামহাকে বিয়ে করি।’

গৃহবধূর স্বামী অভিযোগ করেন, বিয়ে না করে তার স্ত্রীকে নিয়ে একসঙ্গে থেকে ‘ব্যাভিচার’ করছেন আবু সামহা। তিনি এ বিষয়ে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

তবে আবু সামহা বলেন, ‘আমি যদি “ব্যাভিচার” করে থাকি, তবে গত চার দিন আমার দ্বিতীয় স্ত্রীকে বাড়িতে রেখে তিনিও (গৃহবধূর প্রথম স্বামী) “ব্যাভিচার” করেছেন।’

গুরুদাসপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আব্দুল মতিন বলেন, ‘এ বিষয়ে কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি। অভিযোগ পেলে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles