3.4 C
Toronto
বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ৮, ২০২২

হবু বরকে ‘আপত্তিকর’ ছবি পাঠানোর কারণেই আত্নহত্যা

হবু বরকে ‘আপত্তিকর’ ছবি পাঠানোর কারণেই আত্নহত্যা

ভারতীয় হিন্দি সিরিয়ালের জনপ্রিয় অভিনেত্রী বৈশালী টক্করের রহস্যজনকভাবে মৃত্যু হয়েছে। বাড়ি থেকে উদ্ধার করা হয়েছে তার ঝুলন্ত মৃতদেহ। মৃত্যুর একদিন পরেই প্রকাশ্যে আসলো চাঞ্চল্যকর এক তথ্য।

- Advertisement -

ভারতীয় সংবাদ সংস্থা এএনআইয়ের খবর অনুযায়ী, প্রতিবেশী যুবকের হেনস্তার জেরেই আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছেন বৈশালী। জানিয়েছেন ইন্দোর পুলিশের এসিপি এম রহমান।

তিনি জানান, রাহুল নামের এক প্রতিবেশী যুবকের কাছে হেনস্থার শিকার হয়েছিলেন বৈশালী। তার জন্যই এই চূড়ান্ত পদক্ষেপ নিয়েছেন এই অভিনেত্রী। বৈশালীকে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগে মামলা দায়ের করা হয়েছে রাহুল এবং তার স্ত্রী দিশার বিরুদ্ধে।

ভারতীয় পুলিশ সূত্রের বরাত দিয়ে আরও জানা যায়, সুইসাইড নোটে বৈশালী লিখে গেছেন ‘রাহুল আমাকে শারীরিক এবং মানসিক ভাবে শেষ করেছে। শেষে ও বলেছিল, আমায় কিছুতেই বিয়ে করতে দেবে না। আর ঠিক তা-ই করল।’

এদিকে, পেশায় ব্যবসায়ী রাহুলের সঙ্গে আগে সম্পর্কে জড়িয়েছিলেন বৈশালী। অভিনেত্রীর পরিবারও সে কথা জানত। কিন্তু যখনই অভিনন্দন সিং নামের কেনিয়ার দন্ত চিকিৎসকের সঙ্গে বৈশালীর বিয়ে ঠিক হয়, তখনই তাতে বাধা হয়ে দাঁড়ায় রাহুল। সমস্যার সূত্রপাত সেখান থেকেই। একের পর এক বিয়ে ভাঙার পেছনে রাহুলকেই দায়ী করে গেছেন অভিনেত্রী তার সুইসাইড নোটে।

বৈশালীর পরিবারের দাবি, বিয়ে ঠিক হতেই তাদের মেয়ের ‘আপত্তিকর’ ছবি, ভিডিও পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছিল হবু পাত্র তথা চিকিৎসক অভিনন্দনকে। শুধু তা-ই নয়, বৈশালীর সম্পর্কে নানা রকম গুজব রটিয়ে বেড়াতে রাহুল।

এ ঘটনা নিয়ে এসিপি মতিউর রহমান বলেছেন, বর্তমানে নিজের বাড়িতে নেই রাহুল। উনি পলাতক। ওকে খোঁজার চেষ্টা হচ্ছে।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles