19.6 C
Toronto
সোমবার, জুন ২৭, ২০২২

ব্যাংক অব কানাডার প্রধানকে বরখাস্ত হবে বৈশি^ক আর্থিক ধাক্কা

- Advertisement -
ব্যাংক অব কানাডার প্রধানকে বরখাস্ত হবে বৈশি^ক আর্থিক ধাক্কা
ছবি/ ব্যাংক অব কানাডা

কোনো কানাডিয়ান সরকার যদি ব্যাংক অব কানাডার প্রধানকে বরখাস্ত করেন তাহলে তার ফলে বৈশি^ক আর্থিক ধাক্কা আসতে পারে। দ্য ওয়েস্ট ব্লককে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এমনটাই জানিয়েছেন সাবেক সংসদীয় বাজেট কর্মকর্তা কেভিন পেজ।

ইউনিভার্সিটি অব অটোয়ার ইনস্টিটিউট অব ফিসক্যাল স্টাডিজ অ্যান্ড ডেমোক্রেসির বর্তমান প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কেভিন পেজ বলেন, শক্তিশালী ও স্বচ্ছ প্রতিষ্ঠান হিসেবে ব্যাংক অব কানাডার সুনাম রয়েছে। তিন দশক ধরে একটি স্বাধীন কেন্দ্রীয় ব্যাংক আমরা পাচ্ছি, যারা রাজনৈতিক পরিবেশের বাইরে গিয়ে নীতি সুদহারের বিষয় সিদ্ধান্ত নিচ্ছে। সব দিক থেকে খুবই ভালো কিন্তু কঠিন কাজ করে যাওয়া একজন কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রধানকে সরকার যদি সরিয়ে দেয় তাহলে বৈশি^ক আর্থিক ধাক্কা।

কানাডিয়ান সরকার কেন্দ্রীয় ব্যাংক প্রধানকে সরিয়ে দিলে তার পরিণাম কী হতে পারে সেই প্রশ্ন করা হয়েছিল কেভিন পেজকে। প্রশ্নটি এসেছে কনজার্ভেটিভ নেতৃত্বের দৌড়ে প্রচারণা চালানো পিয়েরে পয়লিয়েবরের বক্তব্যকে ঘিরে। বর্ধিত মূল্যস্ফীতির জন্য ব্যাংক অব কানাডার সমলোচনা করেছেন তিনি। কানাডায় বর্তমানে মূল্যস্ফীতির হার দাঁড়িয়েছে ৬ দশমিক ৭ শতাংশে। যদিও এ হার ২ শতাংশের মধ্যে বেঁধে রাখার লক্ষ্য ধরা হয়েছে।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সমালোচনার অংশ হিসেবে পয়লিয়েভার বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হলে গভর্নর ম্যাক্লেমকে তিনি বরখাস্ত করবেন।

ব্যাংক অব কানাডা রাজনৈতিক সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে স্বাধীনভাবে কাজ করবে এটাই কানাডার দীর্ঘদিনের রীতি। এর গভর্নরের মেয়াদকাল সাত বছর।
কোভিড-১৯ মহামারির মধ্যে সুদের হার সর্বনি¤েœ রাখার পথে হাটে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। বিশেষজ্ঞদের মতে, আকাশচুম্বি বাড়ির দামের এটা অন্যতম কারণ। এখন মূল্যস্ফীতি জীবনযাত্রার ব্যয় অব্যাহতভাবে বাড়িয়ে দেওয়ায় পয়লিয়েভারের মতো কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সমালোচকরা বলছেন, অভ্যন্তরীণ মূল্যস্ফীতি উস্কে দিচ্ছে এই নিম্ন সুদহার।

তবে কানাডা একা নয়। বিশ^ব্যাপীই মূল্যস্ফীতি দাপিয়ে বেড়াচ্ছে এবং এর শেষ দেখা যাচ্ছে না।

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles