30.6 C
Toronto
রবিবার, আগস্ট ৭, ২০২২

এয়ার কানাডার বিরুদ্ধে নারীর অভিযোগ

- Advertisement -
এয়ার কানাডার বিরুদ্ধে নারীর অভিযোগ
খালাকে দেখতে মেক্সিকো সিটিতে গিয়েছিল সেবাস্তিয়ান

এয়ার কানাডার ওয়েবসাইটের তথ্য অনুযায়ী, ৮ থেকে ১১ বছর বয়সী কেউ একা ভ্রমণ করতে চাইলে এয়ারলাইন্সের মাইনর সার্ভিসে ফ্লাই করা বাধ্যতামূলক। সে অনুযায়ী, এয়ার কানাডার একজন প্রতিনিধির গেট পর্যন্ত তার সঙ্গে থাকা ও উড়োজাহাজে তুলে দেওয়ার কাজে সহায়তা করার কথা। শিশুরা সাধারণ শেষ তিন সারিতে বসায় তারা কেবিন ক্রুর কাছাকাছি থাকে।

সম্প্রতি এয়ার কানাডার বিরুদ্ধে কোনো ধরনের তদারকি ছাড়াই ১১ বছর বয়সী এক শিশুকে একা মেক্সিকো সিটি থেকে দেশে আনার অভিযোগ করেছেন অন্টারিওর এক নারী। মনিকা পেরেজ নামের ওই নারীর দাবি, গ্রীষ্মের ছুটিতে খালাকে দেখতে মেক্সিকো সিটিতে গিয়েছিল তার ছেলে সেবাস্তিয়ান।

সিটিভি নিউজকে সোমবার তিনি বলেন, আমার ছেলে একাই ছুটি কাটাতে সেখানে গেছে ও ফিরে এসেছে। যদিও একজন অভিভাবককে তার সঙ্গে দিতে আমি ২০০ ডলার পরিশোধ করেছি।

সেবাস্তিয়ানের কানাডায় ফেরার কথা ছিল ২০ আগস্ট। কিন্তু এয়ার কানাডার বিনামূল্যে টিকিট বিনিময়ের সুযোগ নিয়ে সে ১৭ সেপ্টেম্বরের ফ্লাইট বেছে নেয়। পেরেজ বলেন, এরপর এয়ার কানাডার পক্ষ থেকে তার সঙ্গে যোগাযোগ করে জানানো হয় ফ্লাইট সূচি পরিবর্তনের কারণে সেবাস্তিয়ানকে ১৪ সেপ্টেম্বরের ফ্লাইটে দেওয়া হয়েছে। ১৪ সেপ্টেম্বর সেবাস্তিয়ানের খালা তাকে মেক্সিকো সিটিতে বিমানবন্দর পর্যন্ত পৌঁছে দিয়ে যান। এরপর এয়ার কানাডার তরফ থেকে আমার বোনকে জানানো হয়, সেবাস্তিয়ানের জন্য কোনো অভিভাবক নেই। কারণ, আমি নাকি এজন্য তাদেরকে অর্থ পরিশোধ করেনি। কিন্তু আমি অবশ্যই এজন্য অর্থ পরিশোধ করেছি এবং তার রশিদ আমার কাছে আছে। শুধু তাই নয়, সেবাস্তিয়ান ভ্রমণ করতে না চাইলে তার টিকিট বাতিল হয়ে যাবে বলেও এয়ার কানাডার পক্ষ থেকে বলা হয়। কোনো উপায়ান্তর না দেখে আমার বোন একাই সেবাস্তিয়ানকে ভ্রমণের অনুমতি দেয়।

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles