-14.4 C
Toronto
সোমবার, জানুয়ারী ২৪, ২০২২

এক ওড়নায় ঝুলছে হাসপাতাল মালিক ও নার্সের লাশ

- Advertisement -

গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের জাঝর এলাকার একটি বাসা থেকে এক হাসপাতালের মালিক ও নার্সের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ধারণা করা হচ্ছে পরকীয়ার জের ধরে তারা পূর্বপরিকল্পিতভাবে একই ঘরে একই সময়ে ওড়নাতে ঝুলে আত্মহত্যা করেছেন তারা।

- Advertisement -

শনিবার বিকালের দিকে এই ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন গাজীপুরের কালীগঞ্জ উপজেলার বেতয়া গ্রামের মিজানুর রহমানের মেয়ে লিমা আক্তার (২৫) ও সিলেট সদরের বোরাইয়া এলাকার রঞ্জিত চৌধুরীর ছেলে রজত কান্তি চৌধুরী (৩৭)।

গাছা থানার এসআই মনিরুজ্জামান জানান, লিমা আক্তার একসময় গাজীপুর শহরের সিগমা ডায়াগনস্টিক সেন্টারে নার্সের চাকরি করতেন। সেখানে চাকরি করা অবস্থায় ওই ডায়াগনস্টিক সেন্টারের মালিক রজত কান্তির সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে পরকীয়া সম্পর্ক গড়ে ওঠে। তাদের সম্পর্কের বিষয়ে জানাজানি হলে লিমা সেখান থেকে চাকরি ছেড়ে গাছা এলাকার মোটেক সোয়েটার কারখানার মেডিকেল অ্যাসিস্ট্যাস্ট পদে চাকরি নেন। গত একমাস আগে লিমা গাজীপুর মহানগরীর জাঝর উত্তরপাড়ার একটি ভাড়া বাসায় ওঠেন। সেখানে রজত কান্তি নিয়মিত তার সঙ্গে দেখা করতে যেতেন।

লিমা আক্তার গত বৃহস্পতিবার বিকেলে কারখানা থেকে বাসায় যান। শুক্রবার কারখানা বন্ধ ছিল। শনিবার লিমা কারখানায় না যাওয়ায় মালিকপক্ষ দুপুরের দিকে বাসায় লোক পাঠিয়ে দেখতে পান তার রুমের দরজা বন্ধ। ডাকাডাকি করে কোনো সাড়াশব্দ না পেয়ে দরজা ধাক্কা দিয়ে দেখা যায় লিমা ও রজত কান্তি গলায় ওড়না পেঁচিয়ে সিলিং ফ্যানের হুকের সঙ্গে ঝুলে আছেন।

পরে খবর পেয়ে গাজীপুর মেট্রোপলিটন গাছা থানা পুলিশ নিহতদের লাশ উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।

গাছা থানার ওসি কাজী ইসমাইল হোসেন জানান, তাদের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে পরকীয়ার সম্পর্ক ছিলো। পরকীয়ার জের ধরেই শুক্রবার দিবাগত রাতের কোনো একসময় তারা আত্মহত্যা করেছেন বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

সূত্র : বাংলাদেশ জার্নাল

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles