18.4 C
Toronto
শনিবার, আগস্ট ১৩, ২০২২

১৫ লাখ ডোজ অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ কিনছে কানাডা

- Advertisement -
কানাডার ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রী ফিলোমেনা ট্যাসি শুক্রবার বলেন, কোভিড-১৯ এর সংক্রমণের কারণে গুরুতর অসুস্থতা এড়াতে ও জীবন রক্ষা করতে কার্যকর ও সহজ চিকিৎসা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ

কোভিড-১৯ এর চিকিৎসায় মুখে সেবনের জন্য ১৫ লাখ ডোজের বেশি অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ কিনছে কানাডা। হেলথ কানাডা এরই মধ্যে এর অনুমোদন দিয়েছে।

হেলথ কানাডা এর নিরাপত্তা ও কার্যকারিতা সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়ার পর সরকার ১০ লাখ ডোজ অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ ক্রয়ে ফাইজারের সঙ্গে চুক্তি করেছে। ওষুধটির অনুমোদন চেয়ে এ সপ্তাহের গোড়ার দিকে হেলথ কানাডায় আবেদন জমা দেয় কোম্পানিটি।
কোভিড-১৯ এর চিকিৎসায় কানাডা মার্কের ৫ লাখ ডোজ অ্যান্টিভাইরাল ওষুধও কিনেছে। হেলথ কানাডা অনুমোদন দেওয়ার পর আরও ৫ লাখ ডোজ কেনার কথা রয়েছে।

কানাডার ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রী ফিলোমেনা ট্যাসি শুক্রবার বলেন, কোভিড-১৯ এর সংক্রমণের কারণে গুরুতর অসুস্থতা এড়াতে ও জীবন রক্ষা করতে কার্যকর ও সহজ চিকিৎসা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। মহামারি মোকাবেলায় অ্যান্টিভাইরাল ওষুধের মজুদ ভ্যাকসিনের পরিপূরক হিসেবে কাজ করবে। কোভিড মোকাবেলায় এটা আরেকটি হাতিয়ার। তবে গুরুত্বপূর্ণ।

ভাইরাসের বিস্তারের জন্য জরুরি এনজাইম বন্ধ করতে অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ কার্যকর হওয়ায় বিশেষজ্ঞদের অনেকেই কোভিড-১৯ রোগের চিকিৎসায় একে গেম চেঞ্জার হিসেবে মনে করছেন। ফাইজার কানাডার কেভিন মোহাম্মদ শুক্রবার এক লিখিত বিবৃতিতে বলেন, সফল হলে মুখে ব্যবহারের অ্যান্টিভাইরাল থেরাপি কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষের গুরুতর অসুস্থতা কমিয়ে আনতে পারে। চলমান কোভিড-১৯ মহামারির বৈশি^ক প্রভাব মোকাবেলায় ওরাল চিকিৎসা গুরুত্বপূর্ণ হাতিয়ার হিসেবে কাজে আসতে পারে।

মার্কের ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালে দেখা গেছে, মুখে সেবনের অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ কোভিড-১৯ এ আক্রান্তদের হাসপাতালে ভর্তির ঝুঁকি ৫০ শতাংশ কমিয়ে আনতে সক্ষম।

শিরায় প্রয়োগের তুলনায় মুখে সেবনের অ্যান্টিভাইরাল দিয়ে চিকিৎসা তুলনামূলক সহজ বলে জানান ফেডারেল স্বাস্থ্যমন্ত্রী জঁ-ইভস ডুকলস। বর্তমানে অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ কেবল হাসপাতালে ভর্তি রোগীরা পাচ্ছেন। প্রত্যন্ত অঞ্চলে থাকা মৃদু বা মাঝারি মানের অসুস্থ্য ব্যক্তিদের জন্য তা অধরা। নতুন অ্যান্টিভাইরাল ওষুধ চিকিৎসকরা ব্যবস্থাপত্রে লিখবেন এবং বাড়িতে থাকা রোগীদের দেওয়া হবে।
ডুকলস বলেন, ভ্যাকসিন নেওয়া ও ভ্যাকসিনের বাইরে থাকা উভয় রোগীকেই এ চিকিৎসা হাসপাতালে ভর্তির ঝুঁকি অস্বাভাবিক কমিয়ে আনবে।

কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন ও এর চিকিৎসায় ব্যবহৃত সব ওষুধের পর্যালোচনায় অগ্রাধিকার দিচ্ছে হেলথ কানাডা। মহামারির বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সহায়তা করতে পারে এমন কোনো ওষুধ প্রয়োগের সম্ভাবনা থাকলে তা দ্রুত ও পুক্সক্ষানুপুক্সক্ষভাবে পর্যালোচনা করা হবে বলে এর আগে জানিয়েছিল হেলথ কানাডা।

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles