18.7 C
Toronto
শনিবার, জুলাই ১৩, ২০২৪

অন্যের রান্নাঘরে যৌনতা, অকপট স্বীকারোক্তি ঋতাভরীর

অন্যের রান্নাঘরে যৌনতা, অকপট স্বীকারোক্তি ঋতাভরীর
ঋতাভরী চক্রবর্তী

কলকাতার অভিনেত্রী ঋতাভরী চক্রবর্তী বরাবরই স্পষ্ট কথা বলেন। প্রকাশ্যে যৌনতা নিয়ে কথা বলতেও কোনওরকম দ্বিধাবোধ নেই তার। সম্প্রতি আবারও যৌনতা নিয়ে প্রকাশ্যে কথা বললেন অভিনেত্রী। আর এবার নিজের যৌন জীবনের চমকপ্রদ ঘটনাই স্বীকার করলেন একটি শো’তে।

নুসরাত জাহান সঞ্চালিত এক চ্যাট শো’তে উপস্থিত হয়েছিলেন ঋতাভরী। সেখানেই যৌনতা নিয়ে খোলামেলা আলোচনা করেন নায়িকা। অভিনেত্রী বলেন, ‘আমার মতে শরীরের খিদেটাও মনের খিদে। কাউকে ভিতর থেকে এতটা চাইছি যে নিজের সঙ্গে এক করে নিতেও কোনও দ্বিধা থাকছে না।

- Advertisement -

নিজেকে ‘স্যাপিওসেক্সুয়াল’ উল্লেখ করেন ঋতাভরী। অর্থাৎ পুরুষের বুদ্ধিদীপ্ততার প্রতি আকৃষ্ট হন তিনি। ঋতাভরীর কাছে নুসরাত প্রশ্ন করেন, ‘সবচেয়ে অদ্ভূত কোন জায়গায় সঙ্গমে লিপ্ত হয়েছো?’ হাসতে হাসতে নায়িকা বলেন, ‘রান্নাঘরে। নিজের বাড়ির কিচেন নয়, অন্যের বাড়ির।

শুধু নিজের রোমাঞ্চকর যৌনজীবনের কথাই নয়, ক্যাজুয়াল হুক আপের কথাও বলেন তিনি। অভিনেত্রী বলেন, ‘আমি অনেক মেয়েকে দেখেছি যারা একজনের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে জড়িয়েছেন বলে নিজেকে এঁটো মনে করেন। আমরা কেউই কারও খাবার নই। সে মেয়ে হোক বা ছেলে।’

ছোটপর্দার ললিতা হিসাবে পথচলা শুরু ঋতাভরীর।

এরপর লক্ষ্মীমন্ত বউ থেকে বং ক্রাশ হয়ে ওঠেন অভিনেত্রী। বাবা উপলেন্দুর সঙ্গে কোনও যোগাযোগ নেই ছোট থেকেই। মা শতরূপা বড় করেছেন দুই মেয়েকে। গতকাল ৩২ বছরে পা দিয়েছেন ঋতাভরী। জীবনটা ফাটাফাটি ভাবেই বাঁচতে জানেন অভিনেত্রী। ব্যক্তি জীবনে একটা সময় মনোবিদ তথাগতর চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে সম্পর্কে ছিলেন ঋতাভরী। ২০২২ সালে তাদের বিয়ের কথাও পাকাপোক্ত হয়। আংটি বদলের পর লিভ ইনে থাকার কথাও জানিয়েছিলেন নায়িকা। তবে আচমকাই দূরত্ব তৈরি হয় দুজনের। যদিও গত বছর লক্ষ্মীপুজায় ফের কাছাকাছি দেখা গেছে তাদের। গত মার্চে তথাগতর জন্মদিনে আদুরে শুভেচ্ছাও জানান ঋতাভরী।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles