27.7 C
Toronto
বৃহস্পতিবার, জুন ২০, ২০২৪

শাহীনের সঙ্গে শিলাস্তির বন্ধুত্ব গড়ে ওঠে যেভাবে

শাহীনের সঙ্গে শিলাস্তির বন্ধুত্ব গড়ে ওঠে যেভাবে

এমপি আনোয়ারুল আজিম আনা খুনের গোটা ঘটনায় শিলাস্তি রহমান নামে এক নারীর নাম উঠে এসেছে। তাকেই হানিট্র্যাপ হিসাবে ব্যবহার করা হয়েছিল বলে দাবি করা হচ্ছে। এই খুনের মূল চক্রী আখতারুজ্জামান শাহিনের বান্ধবী তিনি।

- Advertisement -

শিলাস্তির বয়স ২২ বছর। তার গ্রামের বাড়ি টাঙ্গাইলের নাগরপুরের ধুবুড়িয়া ইউনিয়নের পাইসানা গ্রামে। তার বাবা কাপড় ব্য়বসায়ী। দুই বোনের মধ্যে বড়। শিলাস্তি ছোটবেলা থেকেই উচ্ছৃঙ্খল চলাফেরা করতেন বলে জানান তার এলাকার বাসিন্দারা।

জানা গেছে, ঢাকার উত্তরায় একটি ফ্ল্যাটে থাকত সে। উচ্চবিত্ত পরিবারের অনেকের সঙ্গে তার যোগাযোগ রয়েছে। সে মূলত এস্কর্ট গার্ল হিসেবে কাজ করতো। এক বন্ধুর মাধ্যমে স্বার্থহীনের সঙ্গে তার পরিচয়। এরপর থেকে শাহীন তাকে নিয়ে বিভিন্ন পার্টিতে যাতায়াত করতো। বিনিময়ে শিলাস্তিকে মাসিক হিসেবে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ খরচও দিতেন শাহীন।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে শিলাস্তি অবশ্য দাবি করেছে, শাহীনকে সে আঙ্কেল বলে ডাকে। তাকে কলকাতায় ঘোরানোর জন্য ও কেনাকাটা করে দেওয়ার কথা বলে নিয়ে গিয়েছিল। খুনের ঘটনার সময় সে ডুপ্লেক্স ফ্ল্যাটের ওপরে ছিল। তবে এমপি আনারকে যখন ঐ ফ্ল্যাটে নিয়ে আসে, তখন দরজা খুলে দিয়েছিল সে।

পরে যখন ডুপ্লেক্স ফ্ল্যাটের নিচতলার কোনার একটি কক্ষ থেকে ব্লিচিং পাউডারের গন্ধ আসে, তখন সে এ বিষয়টি নিয়ে আমান ও অন্যদের জিজ্ঞাসা করেছিল। তারা ফ্লোরের ময়লা পরিষ্কার করেছে বলে জানায়।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles