7.1 C
Toronto
শুক্রবার, ফেব্রুয়ারি ২৩, ২০২৪

চুরি করতে চিকিৎসকের ছদ্মবেশ নিয়ে ঢামেকে, নারী আটক

চুরি করতে চিকিৎসকের ছদ্মবেশ নিয়ে ঢামেকে, নারী আটক
ভুয়া নারী চিকিৎসক মুনিয়া আক্তার রোজা

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে এক ভুয়া নারী চিকিৎসককে আটক করেছে আনসার সদস্যরা। পরনে এ্যাপ্রোন ও গলায় স্টেথোস্কোপ ঝুলানো ওই তরুণী নিজের নাম মুনিয়া আক্তার রোজা (২৪) বলে দাবি করেছেন। এছাড়া নিজেকে চিকিৎসক উল্লেখ করে একটি আইডি কার্ডও বানিয়েছেন তিনি। তবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী বলছে, চুরি করতেই তার এই ছদ্মবেশ।

শনিবার (২৩ ডিসেম্বর) রাতে হাসপাতালে নতুন ভবনে আইসিইউ’র ওয়ার্ডের সামনে থেকে তাকে আটক করে আনসার সদস্যরা।

- Advertisement -

হাসপাতালটির আনসারের প্লাটুন কমান্ডার (পিসি) মো. উজ্জ্বল ব্যাপারি জানান, নতুন ভবনের ৫ম তলার আইসিইউর সামনে এ্যাপ্রোন পরিহিত ওই তরুণীকে দেখে সন্দেহ হলে জিজ্ঞাসাবাদ করে আনসার সদস্যরা। তখন তিনি নিজেকে গাইনি ওয়ার্ডের চিকিৎসক পরিচয় দেন। পরে তাকে নিয়ে গাইনি ওয়ার্ডে গেলে সেখানকার কোনো চিকিৎসকই তাকে দেখে চিনতে পারেননি।

হাসপাতালটির পুলিশ ক্যাম্পের সহকারী ইনচার্জ (এএসআই) মো. মাসুদ জানান, ওই তরুণী প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করেছেন তিনি আসলে চিকিৎসক নন। টাকা দিয়ে নীলক্ষেত থেকে এ্যাপ্রোন কিনেছেন। সাথে কিনেছেন স্টেথোস্কোপ। তাকে আটকের পর ঘটনাটি হাসপাতাল পরিচালককে জানানো হয়েছে। এছাড়া তদন্তের জন্য শাহবাগ থানায়ও অবহিত করা হয়েছে।

আনসারের পিসি উজ্জল ব্যাপারি আরও বলেন, ধারণা করা হচ্ছে ওই তরুণী ছদ্মবেশে চিকিৎসক ও রোগীর স্বজনদের মোবাইল ফোন চুরি করে থাকে। এর আগেও আইসিইউ থেকে মোবাইল চুরির ঘটনা ঘটেছে।

আইডি কার্ডে তার নাম মুনিয়া আক্তার, বাবার নাম করিম খান লেখা রয়েছে। পদবি লেখা রয়েছে “এমবিবিএস”, বিভাগ- গাইনি। কার্ডটিতে হাসপাতাল পরিচালকের নকল করা স্বাক্ষরও রয়েছে।

আটক হওয়া ওই ভুয়া চিকিৎসক বলেন, তার বাড়ি চাঁদপুর সদরে। থাকেন পুরান ঢাকার নাজিম উদ্দিন রোডে। তার স্বামী প্রবাসী আর মা-বাবা দুজনই মৃত। গ্রামের একটি কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পাশ করেছে। নীলক্ষেত থেকে এ্যাপ্রোন ও স্টেথোস্কোপ কিনেছেন তিনি।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles