নায়ক সালমান শাহ হত্যাকাণ্ডের শিকার হননি: পিবিআই

- Advertisement -
চিত্রনায়ক সালমান শাহ

জনপ্রিয় চিত্রনায়ক সালমান শাহের মৃত্যুর ঘটনায় পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) দেওয়া চূড়ান্ত প্রতিবেদন গ্রহণ করেছেন ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মামুনুর রশিদের আদালত। রোববার (৩১ অক্টোবর) এ প্রতিবেদন গ্রহণ করা হয়।

পিবিআইয়ের প্রতিবেদনে বলা হয়, সালমান শাহ হত্যাকাণ্ডের শিকার হননি, পারিবারিক কলহের জেরে তিনি আত্মহত্যা করেছিলেন।

- Advertisement -

সালমান শাহের আত্মহত্যার পাঁচটি কারণ উল্লেখ করা হয় প্রতিবেদনে। সেগুলো হলো- চিত্রনায়িকা শাবনূরের সঙ্গে সালমানের অতিরিক্ত অন্তরঙ্গতা,স্ত্রী সামিরার সঙ্গে দাম্পত্য কলহ, মাত্রাতিরিক্ত আবেগপ্রবণতার কারণে একাধিকবার আত্মঘাতী হওয়া বা আত্মহত্যার চেষ্টা, মায়ের প্রতি অসীম ভালোবাসা জটিল সম্পর্কের বেড়াজালে পড়ে পুঞ্জীভূত অভিমানে রূপ নেওয়া এবং সন্তান না হওয়ায় দাম্পত্য জীবনে অপূর্ণতা।

এদিন পিবিআইয়ের প্রতিবেদন গ্রহণে নারাজি দিয়েছেন সালমান শাহের মায়ের আইনজীবী ফারুক আহম্মেদ। একইসঙ্গে ভার্চ্যুয়ালি সালমান শাহের মা নীলা চৌধুরীর জবানবন্দি গ্রহণের জন্য আবেদন করা হয়েছে।

- Advertisement -

আদালত বাদী উপস্থিত না থাকায় আবেদনটি খারিজ করে দিয়েছেন বলে জানান আইনজীবী ফারুক আহম্মেদ।

- Advertisement -

এর আগে ৩১ আগস্ট মামলার চূড়ান্ত প্রতিবেদনটি গ্রহণের দিন ধার্য ছিল। মামলার বাদী সালমান শাহের মা প্রতিবেদনের ওপর নারাজি দেবেন বলে সময় চেয়ে আবেদন করেন আইনজীবী ফারুক আহম্মেদ। এরপর আদালত শেষ বারের মতো সময়ের আবেদন মঞ্জুর করে ৩১ অক্টোবর নতুন দিন ধার্য করেছিলেন।

গত বছরের ২৫ ফেব্রুয়ারি ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে ৬০০ পৃষ্ঠার প্রতিবেদন জমা দেন পিবিআইয়ের পুলিশ পরিদর্শক সিরাজুল ইসলাম।

উল্লেখ্য, রাজধানীর ইস্কাটনের বাসা থেকে ১৯৯৬ সালের ৬ সেপ্টেম্বর চিত্রনায়ক সালমান শাহ’র মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles