18.5 C
Toronto
সোমবার, জুলাই ২২, ২০২৪

বাংলাদেশের নারী ক্রিকেটারকে নিয়ে ‘অশালীন’ মন্তব্য, তোপের মুখে ধারাভাষ্যকার

বাংলাদেশের নারী ক্রিকেটারকে নিয়ে ‘অশালীন’ মন্তব্য, তোপের মুখে ধারাভাষ্যকার
বল করছেন নাহিদা আক্তার ছবি সংগৃহীত

ম্যাচ চলাকালে বাংলাদেশের নারী স্পিনার নাহিদা আক্তারকে নিয়ে অশালীন মন্তব্য করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তোপের মুখে পড়েছেন শ্রীলংকান ধারাভাষ্যকার রোশান আবেসিংহে। এই মন্তব্যের জন্য পরে ক্ষমা চাইতেও বাধ্য হয়েছেন তিনি। খবর ডেইলি মেইলের।

ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার (৯ মে) বাংলাদেশ ও শ্রীলংকার নারীদের মধ্যকার ১ম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে। ইনিংসের ১৩তম ওভারে বল করছিলেন নাহিদা। তার করা তৃতীয় বলটি ‘নো’ ডাকেন আম্পায়ার। সে সময় রোশান বলেন, ‘এই নো বল ক্ষমার অযোগ্য। এর দুটি কারণ। এক, স্পিনার নো বল করেছে। দুই, একজন নারী নো বল করেছে। নারীদের পা বেশি দূর যায় না। তাই তাদের নো বল করা উচিত নয়।’

- Advertisement -

পরে অবশ্য রিভিউতে দেখা যায়, বল করার সময়ই অসতর্কতার কারণে নাহিদার হাতে লেগে স্ট্যাম্প বেল পরে যায়। তার পা ক্রিজের ভেতরেই ছিল। বেল পরে যাওয়ার কারণে নো ডাকেন আম্পায়ার। সে সময় আবেসিংহের মন্তব্য, ‘সে কথাই বলছিলাম আমি। একজন নারীর পা বেশি দূরে যাওয়ার কথা না।’

ধারাভাষ্যের এই অংশটুকু সামজিক যোগাযোগমাধ্যমে শেয়ার করে আবেসিংহের সমালোচনা শুরু করেন অনেকে। নারী ক্রিকেটের ধারাভাষ্যকার জর্জ হিথ তো আবেসিংহেকে আর ধারাভাষ্য না দিতেই বলেছেন।

ধারাভাষ্যের সেই অংশটুকু টুইটারে শেয়ার করে হিথ বলেছেন, ‘নারী ক্রিকেটের ধারাভাষ্য থেকে এই ধারাভাষ্যকারকে বহিষ্কার করা উচিত।’

পরে এ ঘটনায় ক্ষমা চেয়ে পোস্ট দিয়েছেন আবেসিংহে। তিনি বলেছেন, জর্জি (জর্জ হিথ), যদি আপনি বা কেউ এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ হন, তার জন্য আমি নিঃশর্ত ক্ষমা চাইছি। আমি কাউকে হেনস্থা করার জন্য এই কথা বলিনি। ক্রিকেটীয় দৃষ্টিকোণ থেকেই কথাটি বলছিলাম। তারপরও আমি ক্ষমা চাইছি।’

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles