-2.3 C
Toronto
সোমবার, জানুয়ারী ৩০, ২০২৩

সর্বোচ্চ বেতনভোগী সিইওদের গড় আয় ১৪.৩ মিলিয়ন ডলার

সর্বোচ্চ বেতনভোগী সিইওদের গড় আয় ১৪.৩ মিলিয়ন ডলার
২০২১ সালে সবচেয়ে বেশি আয় করেছেন নুভেইয়ের চেয়ার এবং সিইও ফিলিপ ফেয়ার বার্ষিক বেতন ১০ লাখ ডলারের নিবেচ হওয়া সত্ত্বেও ২০২১ সালে কোম্পানি থেকে তিনি পেয়েছেন মোট ১৪ কোটি ১০ লাখ ডলার

কানাডার সর্বোচ্চ বেতনভোগী ১০০ প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) ২০২১ সালে আয় করেছেন গড়ে ১ কোটি ৪৩ লাখ ডলার। এর আগে তারা সর্বোচ্চ বেতন পেয়েছিলেন ২০১৮ সালে গড়ে ১ কোটি ১৮ লঅখ ডলার করে। কানাডিয়ান সেন্টার ফর পলিসি অল্টারনেটিভস (সিসিপিএ) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
এই ১০০ সিইওর বেশিরভাগই পুরুষ এবং ২০২১ সালে তাদের গড় বেতন ছিল সাধারণ কানাডিয়ানদের ২৪৩ গুন। ২০১৮ সালে সাধারণ কানাডিয়ানদের ২২৭ গুন বেতন পেয়েছিলেন তারা।

প্রতিবেদনের তথ্য অনুযায়ী, বেতনের বড় অংশ তারা বেতনবাবদ পেয়েছেন এমন নয়। এর বেশিরভাগই এসেছে অন্যান্য খাত থেকে। এর মধ্যে রয়েছে বোনাস, স্টক ও শেয়ার। এর অনুপাত প্রতি বছরই বাড়ছে এবং ২০২১ সালে অন্যান্য খাত থেকে এসেছিল তাদের মোট আয়ের ৮৩ শতাংশ। ২০১৮ সালে এ হার ছিল ৬৯ শতাংশ।
অন্যান্য খাত থেকে এ আয় কোম্পানির পারফরমেন্সের সঙ্গে সম্পর্কিত। তবে এটাই যে সব নয়, মহামারি তা দেখিয়ে দিয়েছে। কোম্পানি যখন আর্থিক দুঃসময়ে পড়ে, যেমনটা পড়েছিল ২০২০ সালে, তখন তারা বেতনবিধিতে পরিবর্তন আনে, যাতে করে নির্বাহীদের বেতন খুব বেশি না কমে। আবার কোম্পানি যখন ভালো করে, যেমন উচ্চ মূল্যস্ফীতির সময়, তখন তারা এর সুফল ঘরে তোলেন।

- Advertisement -

ম্যাকডোনাল্ড বলেন, এই তালিকার অর্ধেক সিইও ২০২০ সালে সরকারি সহায়তা নিয়েছেন অথবা তাদের বেতনের ওপর যাতে মহামারির প্রভাব না পড়ে সেজন্য বোনাসের ফর্মুলা বদলে ফেলেছেন। এর পরের বছর গেছে রকর্ড মূল্যস্ফীতির, যা কোম্পানিকে রেকর্ড মুনাফার সুযোগ করে দিয়েছে এবং সিইওরাও রেকর্ড বেতন পেয়েছেন।

সিই্ওদের ২০২১ সালের আয়ের এ প্রবণতা ২০২২ সালেও অব্যাহত ছিল বলে ধারণা করা হচ্ছে। এর কারণ মূলত রেকর্ড মুনাফা ও ঐতিহাসিক সর্বোচ্চ মূল্যস্ফীতি। মূল্যস্ফীতি কমানোর লক্ষ্যে ব্যাংক অব কানাডার সুদের হার বৃদ্ধি সত্ত্বেও গত বছর এ ধারা অব্যাহত ছিল বলে মনে করেন ম্যাকডোনাল্ড।
তিনি বলেন, মহামারি-পূর্ববর্তী অবস্থায় আমরা ফিরে গেছি বলে মনে হয় না। ২০২২ সালে উচ্চ বেতন পেয়েছেন বলেই আমার ধারণা। মূল্যস্ফীতি সাধারণত পরিবার ও কর্মীদের জন্য খারাপ। কিন্তু করপোরেট খাতের জন্য এটা আশীর্বাদ এবং সিউওদের জন্য দারুণ।

প্রতিবেদনে সরকারের প্রতি চারটি নীতি প্রস্তাবনা রাখা হয়েছে। এর মধ্যে একটি হচ্ছে সম্পদ কর চালু করা এবং অন্যটি উচ্চ শীর্ষ মার্জিনাল কর ব্যবস্থার প্রবর্তন করা।

২০২১ সালে সবচেয়ে বেশি আয় করেছেন নুভেইয়ের চেয়ার এবং সিইও ফিলিপ ফেয়ার। বার্ষিক বেতন ১০ লাখ ডলারের নিবেচ হওয়া সত্ত্বেও ২০২১ সালে কোম্পানি থেকে তিনি পেয়েছেন মোট ১৪ কোটি ১০ লাখ ডলার। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ আয় করেছেন জিএফএল এনভায়রনমেন্টাল ইনকরপোরেশনের প্রেসিডেন্ট এবং সিইও প্যাট্রিক ডোভিগি। ২০২১ সালে বেতন-ভাতা বাবদ কোম্পানি তাকে পরিশোধ করেছে ৪ কোটি ৩০ লাখ ডলার। সর্বোচ্চ আয়কারী ১০০ সিই্ওর তালিকায় বেতন-ভাতা বাবদ সবচেয়ে কম অর্থ পাওয়া সিইও ক্যামেকো করপোরেশনের টিম গিটজেল। ২০২১ সালে কোম্পানির কাছ থেকে তিনি পেয়েছেন ৬৭ লাখ ডলার।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles