5.1 C
Toronto
মঙ্গলবার, ডিসেম্বর ৬, ২০২২

অর্ধনগ্ন হয়ে প্রতিবাদ মডেল-অভিনেত্রীর, ইরানে ঝড়

অর্ধনগ্ন হয়ে প্রতিবাদ মডেল-অভিনেত্রীর, ইরানে ঝড়
ছবি সংগৃহীত

হিজাব এবং বোরখায় মাথা থেকে পা পর্যন্ত সারা শরীর ঢাকা। ধীরে ধীরে পরনের হিজাব খুলতে শুরু করেন এক নারী। বোরখার তলায় পরে ছিলেন বিভিন্ন পোশাক। একে একে পরে থাকা কুর্তি, ডেনিম শার্ট-জিনস, ক্রপ টপ-মিনি স্কার্ট এমনকি অন্তর্বাসটুকুও খুলে ফেলেন তিনি। সম্প্রতি এই ‘স্ট্রিপিং’ ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়ায় ইরানে ঝড় উঠে গিয়েছে।

এলনাজ নরৌজি। পেশায় একাধারে মডেল এবং অভিনেত্রী। নারীর পোশাকের স্বাধীনতা ও বাধ্যতামূলক হিজাব আইন বাতিলের দাবিতে ইরানের চলমান আন্দোলনকে প্রকাশ্যে সমর্থন করতে তার পোশাক ছাড়ার এই ভিডিও ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করেন তিনি। শেষে নিজের পোশাকে ঢাকা এবং পোশাক ছাড়া ছবি পোস্ট করে লিখেছেন, ‘দুটোর যে কোনও একটি আমার পছন্দ হতে পারে। সেই পছন্দ বেছে নেওয়ার স্বাধীনতা আমাদের দিতে হবে’।

- Advertisement -

এলনাজের জন্ম ইরানের তেহরানে এক মুসলিম পরিবারে। জন্মের আট বছর পর জন্মভূমি ছেড়ে সপরিবারে জার্মানিতে চলে যান এলনাজ। ছোটবেলা থেকেই অভিনয়ের সঙ্গে সঙ্গে মডেলিংয়ের শখ ছিল তার। ১৪ বছর বয়স থেকেই মডেলিং জগতে নিজের ক্যারিয়ার শুরু করে দিয়েছিলেন তিনি। পাশাপাশি জার্মান-সহ ইংরেজি, ফরাসি, হিন্দি, উর্দু এবং পঞ্জাবি ভাষাতেও দক্ষ হয়ে উঠেছিলেন এলনাজ।

১৯ বছর বয়স পর্যন্ত এশিয়া এবং ইউরোপের বিভিন্ন প্রান্তে মডেলিং সূত্রে গিয়েছেন এলনাজ। এর পর অভিনয়ের দিকে ঝুঁকতে শুরু করেন। স্কুলের পড়াশোনা শেষ হওয়ার পর জার্মানির হ্যানোভারে এক বছরের জন্য অভিনয় শেখার জন্য ওয়ার্কশপ করেন তিনি।

অভিনয় জগতের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার আগে ১০ বছর বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রচারের মুখ ছিলেন এলনাজ। জামাকাপড় থেকে শুরু করে খেলাধুলোর বিভিন্ন সামগ্রী বিক্রির সংস্থার সঙ্গেও কাজ করতে দেখা গিয়েছে তাকে। পার্সি সংস্কৃতির নাচ থেকে শুরু করে হিপ হপ, কত্থক নাচেও পারদর্শী এলনাজ।

ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম আনন্দ বাজার জানায়, জার্মানি থেকে তিনি ভারতে আসেন। ভারতে নিজের ক্যারিয়ার তৈরি করতে বিভিন্ন ওয়ার্কশপে যোগ দেন এলনাজ। শাহরুখ খান, সালমান খান এবং অজয় দেবগনের মতো বলিউডের নামকরা অভিনেতাদের সঙ্গে ছোট পর্দার বহু বিজ্ঞাপনে কাজ করেছেন তিনি। পাকিস্তানি ছবি ‘মান যাও না’, পঞ্জাবি ছবি ‘খিড়ো খুন্ডি’ ছবিতে অভিনয় করার সুযোগও পেয়েছিলেন তিনি।

তবে, ২০১৮ সালে ভাগ্যের চাকা ঘুরে যায় এলনাজের। নেটফ্লিক্স ওটিটি প্ল্যাটফর্মে মুক্তিপ্রাপ্ত ‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজে অভিনয় করতে দেখা যায় এলনাজকে। ‘অভয়’ ওয়েব সিরিজেও অভিনয় করেছিলেন এই মডেল অভিনেত্রী। শুধু তা-ই নয়, বিভিন্ন পঞ্জাবি গানের ভিডিওতেও অভিনয় করতে দেখা গিয়েছে এলনাজকে।

২০১৯ সালে দক্ষিণী ছবি ‘জন গণ মন’ ছবিতে অভিনয় করার সুযোগ পেয়েছিলেন তিনি। ২০২১ সালে ‘হেলো চার্লি’ ছবিতে কাজ করেন এলনাজ। তিনি জানান, শাহরুখ খান তার জীবনের আদর্শ।

সংবাদ মাধ্যমে এক সাক্ষাৎকারে এলনাজ জানান, ‘সেক্রেড গেমস’ সিরিজে কিছু দৃশ্যে অভিনয় করার সময় তিনি অসুবিধার সম্মুখীন হয়েছিলেন। পরিচালক অনুরাগ কশ্যপ তাকে এত নিখুঁত ভাবে সব বুঝিয়েছিলেন যে পরবর্তী কালে এই ধরনের দৃশ্যে অভিনয় করতে আর ইতস্তত বোধ করেননি এলনাজ।

মডেল-অভিনেত্রী জানান, মুম্বাইয়ে এসে থাকার সময় জায়গা খুঁজতে গিয়ে তাকে বিভিন্ন প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হয়। তিনি কার সঙ্গে থাকবেন, বয়স কত, কোন পেশায় রয়েছেন, সিঙ্গল কিনা- এই ধরনের প্রশ্ন করা হয়েছিল এলনাজকে।

শুরুর দিকে মায়ানগরীতে এসে এই শহরের আদব-কায়দার সঙ্গে মানিয়ে নিতে কষ্ট হয়েছিল তার। এমনকি, হিন্দি ভাষা রপ্ত করাও কঠিন ছিল বলে জানিয়েছেন এলনাজ।

পাকিস্তানি, পাঞ্জাবি এবং হিন্দি ছবিতে অভিনয় করার পর ইরানের ফিল্মজগতেও কাজ করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল তাকে। কিন্তু এত বিধিনিষেধ থাকায় এলনাজ নিজে থেকেই সেই প্রস্তাবে সাড়া দেননি।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles