18.7 C
Toronto
রবিবার, জুন ২৬, ২০২২

আমার ড্রেস কি খারাপ ছিল, এমন ঘটল?

- Advertisement -
আমার ড্রেস কি খারাপ ছিল, এমন ঘটল?
প্রতীকী ছবি

এক তরুণী বুধবার রাতে রাজধানীর নীলক্ষেত থেকে রিকশায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভেতর দিয়ে বংশালের বাসায় ফিরছিলেন। এ সময় একটি মোটরসাইকেল আরোহী থাবা দিয়ে তাঁর পরনের জামা ছিঁড়ে ফেলে। বৃহস্পতিবার বিকেলে তরুণীর বন্ধুবান্ধব শাহবাগ থানায় গিয়ে মৌখিকভাবে বিষয়টি জানান। মামলা রুজু না হলেও পুলিশ ঘটনা শোনার পর তদন্ত শুরু করেছে।

শাহবাগ থানার ওসি মওদুত হাওলাদার বলেন, বিষয়টি আমরা মৌখিকভাবে জেনেছি। তরুণী ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্যার এএফ রহমান হলের সামনে রিকশায় নিপীড়নের শিকার হন বলে শুনেছি। শুক্রবার (আজ) মেয়েটি লিখিত অভিযোগ করবেন। এএফ রহমান হলের সামনে সিসি ক্যামেরা নেই। আশপাশের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করে জড়িতকে শনাক্তের চেষ্টা চলছে। শাহবাগ থানা পুলিশ জানায়, বুধবার দিবাগত রাত সোয়া ১২টার দিকে তরুণী নীলক্ষেত থেকে রিকশায় উঠে স্যার এএফ রহমান হলের সামনে দিয়ে বংশালের বাসায় যাচ্ছিলেন। তখন নিপীড়নের শিকার হন তিনি। গতকাল বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে কয়েকজন থানায় এসেছিলেন। অভিযোগ শুনে কয়েক পুলিশ কর্মকর্তা ঘটনাস্থলে যান।

এদিকে নিপীড়নের শিকার তরুণী তাঁর ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। তাতে নিজের ছেঁড়া জামা পরা একটি ছবি পোস্ট করে লিখেছেন, কানে হেডফোন দিয়ে গান শুনতে শুনতে তিনি রিকশায় বাসায় ফিরছিলেন। রিকশার পেছন থেকে মোটরসাইকেলে আসা এক ব্যক্তি হঠাৎ খামচে ধরে তাঁর জামা ছিঁড়ে ফেলে। এর পর গালাগাল করতে করতে চলে যায়। চিৎকার শুনে তখন কেউ এগিয়ে আসেনি।

তিনি আরও লিখেছেন, ‘আমার এই ড্রেসে ঠিক কী খারাপ ছিল, যার কারণে এমন ঘটনা ঘটল? কখনও ভাবি নাই- আমার ঢাকা শহরে আমার সাথেই এমন কিছু হতে পারে! একটা মানুষ আগায় আসলো না। একটা মানুষও না! এই দেশে থাকতে চাইলে বিনিময়ে রাস্তাঘাটে গায়ে হাত দেওয়ার পারমিশন দিতে হবে? নাকি এখন সন্ধ্যার পর বাসার বাইরে বের হওয়া বন্ধ করে দিব?’

পুলিশের রমনা বিভাগের উপকমিশনার সাজ্জাদুর রহমান জানান, ঘটনাটি মেয়েটির বন্ধুদের কাছ থেকে জানার পর তদন্ত শুরু করেছি। গুরুত্ব বিবেচনা করে একজন অতিরিক্ত উপকমিশনারকে (এডিসি) দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে, কী ঘটেছে সে বিষয়ে মেয়েটির সঙ্গে কথা বলার জন্য। এর আগে গত ১৮ মে নরসিংদী রেলস্টেশনে এক তরুণীকে ‘অশালীন’ পোশাক পরার অপবাদ দিয়ে হেনস্তা করা হয়। ওই ঘটনার ভিডিও ভাইরাল হয়। পরবর্তী সময়ে এক নারীসহ দু’জনকে গ্রেপ্তার করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles