21.4 C
Toronto
বুধবার, জুলাই ২৪, ২০২৪

বিয়ের ১৩ বছর পর স্ত্রীর গোপন রহস্য ফাঁস, পুলিশের দারস্থ অধ্যাপক

বিয়ের ১৩ বছর পর স্ত্রীর গোপন রহস্য ফাঁস, পুলিশের দারস্থ অধ্যাপক
স্ত্রীর গোপন রহস্য ফাঁস

বিয়ের পর ১৩ বছর এক ছাদের নীচে থাকার পর সামনে এলো স্ত্রীর রহস্য। পরিস্থিতি বেগতিক হওয়ায় শেষ পর্যন্ত থানায় গিয়ে স্ত্রীর বিরুদ্ধে প্রতারণার মামলা দায়ের করেছেন স্বামী। এই ঘটনাটি ঘটেছে ভারেতর এলাহাবাদে। অভিযোগকারী হলেন এলাহাবাদ বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন সহযোগী অধ্যাপক।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়, ২০১১ সালে আসামের বাসিন্দা প্রতিভা তিওয়ারি নামে এক নারীর সঙ্গে বিয়ে হয় সহযোগী অধ্যাপক অমরেন্দ্র ত্রিপাঠীর। কিন্তু বিয়ের প্রায় ১৩ বছর পর ২০২৪ সালের মে মাসে তাদের বেড রুম থেকে কিছু কাগজপত্র পান তিনি।

- Advertisement -

এটা থেকে জানা যায় যে তার স্ত্রী ২০০৭ সালে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করে এক যুবক বিয়ে করেছিলেন। বিষয়টি সামনে আসার পর তা নিয়ে স্ত্রীর সঙ্গে কথা বলতে গেলে তাকে বাড়ি থেকে বের করে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ করেছেন ওই অধ্যাপক। বর্তমানে তাদের এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে।

ওই সহযোগী অধ্যাপকের অভিযোগে বলা হয়, বিয়ের কিছু সময় পর থেকেই স্ত্রীর আচরণ আগ্রাসী ও অমানবিক হতে শুরু করে। প্রথম প্রথম তাই নিয়ে আপত্তি জানালেও সামাজিক প্রথার কথা মাথায় রেখে স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্ক চালিয়ে যান তিনি। কিন্তু বিয়ের সময় তার স্ত্রীর পরিবারের সদস্যরা এসব তথ্য গোপন করে তাদের মেয়েকে তার সঙ্গে বিয়ে দিয়ে বিশ্বাসঘাতকতা করেছে। তাই তিনি পুলিশের দ্বারস্থ হন।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles