20.9 C
Toronto
বুধবার, জুন ১২, ২০২৪

বিয়ের নিউজের চাপ ঢাকল আমাকে দিয়ে, কত বড় নেমকহারাম: পরীমনি

বিয়ের নিউজের চাপ ঢাকল আমাকে দিয়ে, কত বড় নেমকহারাম: পরীমনি
পরীমনি

ঢাকাই সিনেমার তারকা শরীফুল রাজ-পরীমনির বিচ্ছেদ হয়েছে প্রায় দুই বছর হয়ে গেল। সন্তান পুণ্য বড় হচ্ছে মায়ের কাছে। অন্যদিকে, বিচ্ছেদের পর থেকেই রীতিমতো মুখ দেখাদেখি বন্ধ তাদের। দীর্ঘদিন এমনটাই ছিল, তবে কয়েক দিন আগেই তারা খবরের শিরোনাম হয়েছেন এভাবে—‘পরীর বাসায় রাজ, খাওয়া-দাওয়া করেছেন একসঙ্গে’।

জানা যায়, সম্প্রতি পরীর বাসায় গিয়েছিলেন রাজ। বিষয়টি গণমাধ্যমে স্বীকার করেছেন চিত্রনায়িকা নিজেও।

- Advertisement -

ঢালিউডে যখন এই আলোচনা সবার মুখে মুখে, তখন হঠাৎ আজ সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পরীমনির একটি স্ট্যাটাস নিয়ে দানা বেঁধেছে রহস্য।

নায়িকা লিখেছেন, ‘যাকে আমার বাসার দারোয়ানই গেটে এলাও করবে না, সে স্বপ্নে আমার রান্না খায়!’

সামাজিকমাধ্যমে মুহূর্তেই ছড়িয়ে পড়েছে পরীমনির এই পোস্ট। অনেকে জানতে চাইছেন— ‘কাকে বাসার দারোয়ানই ঢুকতে দিবে না’ কিংবা ‘কে খাইলো তোমার রান্না স্বপ্নে?’

এমন এক প্রশ্নের উত্তরে পরীমনি বলেছেন, ‘আছে এক টোকাই। তার বিয়ের নিউজের চাপ ঢাকল আমাকে আর আমার ছেলেকে দিয়ে। কত বড় নেমকহারাম!’

তবে নায়িকার পোস্টে নির্দিষ্ট কারও নাম উল্লেখ না থাকলেও নেটিজেনদের বুঝে নিতে কোনো অসুবিধা হচ্ছে না যে সাবেক স্বামী রাজকে উদ্দেশ্য করেই এ কথা বলেছেন তিনি।

মূলত সন্তানকে দেখার জন্য এরই মধ্যে বেশ কয়েকবার পরীর বাসায় যাতায়াত করেছেন রাজ। এ কথা স্বীকার করে নায়িকা বলেন, ‘অন্য একটি বিষয়ের জন্য সে (রাজ) বাসায় এসেছিল। বিচ্ছেদ হওয়ার পর আমার সঙ্গে দেখা হয়নি। আমি দেখা করতেও চাইনি। বাসায়ও আসা মানা ছিল তার। কিন্তু হঠাৎ করেই কিছুদিন আগে আমার বাসায় এসেছিল। সেই সময় বাসা থেকে যাওয়ার আগে তার কিছু গুরুত্বপূর্ণ কাগজপত্র আমার বাসায় রয়ে গিয়েছিল। কয়েকজনকে সঙ্গে নিয়ে বাসায় এসেছিল। কাগজপত্রগুলো আমি যত্ন করেই রেখে দিয়েছিলাম। এসে নিয়ে গিয়েছে। বেশ অনেকক্ষণই ছিল। এলে তো আর বের করে দিতে পারি না।’

প্রসঙ্গত, বর্তমানে পরীমনি ব্যস্ত রয়েছেন নির্মাতা অনম বিশ্বাস পরিচালিত ‘রঙিলা কিতাব’ ওয়েব সিরিজের কাজ। ক’দিনের মধ্যেই এর শুটিং শেষ হওয়ার কথা রয়েছে। স্ট্রিমিং প্ল্যাটফর্ম হইচই’র জন্য নির্মিত হচ্ছে এটি।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles