6 C
Toronto
বুধবার, ফেব্রুয়ারী ৮, ২০২৩

বেগুন তলায় হাট বসতে আর কত দেরী

বেগুন তলায় হাট বসতে আর কত দেরী
চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি

এক.
আজ ভোরে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টির কারণে হাঁটতে বের হই নি। গতকাল বের হয়েছিলাম, দেখা হলো প্রাইমারী স্কুলের অপর সহপাঠী আক্কাসের সাথে। আক্কাস বলে ডাক দিতেই জড়িয়ে ধরলো। সাথে ছোট ভাই তুল্য ব্যবসায়ী বাবলু। কুয়াসাচ্ছন্ন ভোরে অনেক কথা হলো। দুঃখজনক সংবাদ পেলাম ওদের কাছ থেকেই। বাজারের অপর ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী গোপালের আত্মহত্যা জনিত সংবাদ। যখনই কানাডা থেকে বাড়ীতে এসেছি তখনই গোপাল কিছু লাউ, কুমড়া শাক সবজীর বীজ দিয়ে দিত। আমার নির্বাচনেও ছিল অনেক ভুমিকা। সেই গোপাল কি এক অভিমানজনিত কারণে শরীরে আগুন লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছে। মনটা খারাপ হয়ে গেল।

দুপুরে অনেকদিন পরে দেখা হলো খোকার সাথে। সেখানে ঝড়ু কাকার দুই ছেলেকে দেখে অবাক হলাম। ঝড়ু কাকা ঝড়ু মেকার হিসেবে পরিচিত ছিলেন। তার দোকানের সামনের দোকানে আমরা একসময় ঘন্টার পর ঘন্টা আড্ডা দিতাম। কানাই মেকার (কাইমুদ্দিন চাচা) চাচা আর ঝড়ু মেকার চাচা ছিলেন দুই আপন ভাই। আমার নির্বাচনে উনাদের অবদান ছিল অপরিসীম। ঝড়ু কাকার এলাকা কাটাখালিতে ১৯৯০ সালে যখন এক বিরাট নির্বাচনী সভায় বক্তৃতা করছিলাম তখন হঠাৎ একটা মৌমাছি এসে আমার ঠোঁটে হুল বিধিঁয়ে চলে গেল। সেই সময় ঝড়ু কাকার এই ছেলেরা অনেক ছোট থাকলেও ওরা আজ এতদিন পরে সেই গল্প মনে করিয়ে দিল। চেহারা অনেকটা বাবার মতই। অনেকেই এখনো জিজ্ঞেস করে আবার ফিরে আসবো কিনা! আসলে মানুষের গন্তব্য মানুষ কি জানে?

- Advertisement -

দুই.
একটি মোটিভেশনাল ভিডিও দেখলাম যেখানে বলা হয়েছে মানুষের জীবন শুরু ও শেষ হয় দুটো ইংরেজী অক্ষর দিয়ে। B (Birth) দিয়ে শুরু এবং D (Death) তে শেষ। তবে মজার বিষয় হলো এই দুই অক্ষরের মাঝে একটি অক্ষর আছে যার নাম C যেটাতে হয় Choice.
লেটার বি এবং ডি এর উপর মানুষের হাত নেই কিন্তু সি এর উপর আছে। অর্থাৎ আপনি পড়ালেখা করে মানুষ হবেন নাকি দুর্নীতিবাজ মুর্খ নেতা হবেন তা আপনার চয়েস। আপনি সারাদিন ময়লা নোংড়া আবর্জনার শহরে বাস করবেন নাকি পরিস্কার পরিচ্ছন্ন শব্দ দূষণমুক্ত হেলদী শহরে বাস করবেন তা আপনার চয়েস। আপনি সারাদিন নিজের ও পরিবারের কথা চিন্তা করবেন, নাকি সীমিত সাধ্যের মধ্যেও পাড়া প্রতিবেশীর কথা চিন্তা করবেন তা আপনার চয়েস। আপনি পাড়ার বখাটে মদখোর মাতাল, মাদক ব্যবসায়ীদের, মিথ্যাবাদীদের বন্ধু বানাবেন নাকি উন্নত ও প্রগতিশীল চিন্তার মানুষদের সাথে বন্ধুত্ব করবেন তা আপনার চয়েস। এরকম হাজারটা চয়েস আছে যা আপনার নিজের উপর নির্ভর করে যার বাস্তবায়নে আপনার অদম্য ইচ্ছাশক্তিই যথেষ্ট, তেমন টাকা পয়সার প্রয়োজন হয় না।
এসব নিয়েই দু একটা কথা বলছিলাম দুদিন আগে দেখা করতে আসা গোয়ালন্দের কিছু মেধাবী সন্তান যারা কর্মের প্রয়োজনে দেশের বিভিন্ন স্হানে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকলেও নিজ এলাকা ও দেশ নিয়ে ভাবেন। নিজের মাটি নিজের জন্মভূমি, নিজের দেশের চেয়ে মহামুল্যবান পৃথিবীতে আর কী আছে! তোমাদের সাথে দেখা হয়ে খুব ভাল লাগল।

তিন.
এক সময় এক দলের হেভীওয়েট ক্যান্ডিডেটের বিপরীতে প্রতিদ্বন্দ্বী অপর দলও সেখানে সমমর্যাদার হেভিওয়েট ক্যান্ডিডেট দিত। যেমন বেগম সাজেদা চৌধুরীর সাথে কে এম ওবায়দুর রহমানকে আমরা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে দেখেছি। চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, ইমাম উদ্দিন বা মোশারফ হোসেন, ব্যরিষ্টার মওদুদ এবং ওবায়দুল কাদের, তোফায়েল আহমেদ মেজর হাফিজ, এম কোরবান আলী, শাহ মোয়াজ্জেম হোসেন, বদরুদ্দোজা চৌধুরীদেরকে আমরা একই এলাকায় পরস্পরের বিপরীতে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে দেখেছি।
পরবর্তীতে এক্সপেরিমেন্ট হলো মুর্খ অথচ টাকাওয়ালার বিপরীতে মেধা। মেধা পরাজিত হলো। এস এ খালেকের সাথে ডক্টর কামাল পরাজিত হয়ে রিপ্লেসড হলেন এখলাস উদ্দিন মোল্লা। আবার ব্যালেন্স হলো।
এখন নায়িকা মাহিয়া মাহির সাথে টিকতে হলে পরীমনি ছাড়াতো আর কোন উপায় দেখছি না! হিরো আলমের সাথে দিলদার আলীদের প্রতিযোগীতার সময় চলছে এখন। বেগুন তলায় হাট বসতে আর কত দেরী পান্জেরী!

চার.
গোয়ালন্দের মর্নিং ওয়াক গ্রুপের (হাঁটা পার্টি) সাথে আজ আমরা সকালের নাস্তা করলাম। আজকের হোষ্ট ছিলাম আমি। যোগ দিয়েছিলেন গোয়ালন্দের মেয়র, ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতিসহ অনেকেই। আমি আজও পরিচ্ছন্ন গোয়ালন্দের প্রসংগ তুলতেই মেয়র আমাকে আশ্বস্ত করলেন যে পরেরবার আমি যখন গোয়ালন্দে আসবো তখন অন্যরকম এক নগর দেখতে পাবো ইনশাল্লাহ। তবে একটি কথা তিনিও বললেন এবং আমিও সব সময় বলে থাকি তাহলো কোন কিছুই কোন মেয়র, চেয়ারম্যান, এমপির পক্ষে একা একা করা সম্ভব নয়, জনগণের সহযোগীতা ছাড়া। সচেতন এবং অগ্রসর চিন্তার অধিকারী নাগরিকদেরকে ঐক্যবদ্ধভাবে এগিয়ে আসতে হবে পরিকল্পনা প্রনয়ণ এবং বাস্তবায়নের সাথে ওতপ্রোতভাবে জড়িত থাকতে হবে। নিজেদের কাজ, উন্নয়ন, ভালমন্দ সবকিছু বুঝে নিতে হবে। অন্যেরা করে দিবে, এরকমটা ভাবলে ঠকতে হবে। আমি মনে করি যারা এখনো কোন ঠিকাদারীর সাথে জড়িত নয়, কোন হীন স্বার্থ যাদেরকে টানতে পারে না, অথচ দেশের কথা ভাবেন এরকম লোকদেরকে নিয়ে বাংলাদেশের প্রতিটি পৌর এলাকায় একটি করে নাগরিক কমিটি গঠন করা উচিত যাঁদের কাজ হবে প্রেসার গ্রুপের মত, ওয়াচ পার্টির মত। নদীর মধ্যে টানেল, মেট্রো রেল, পদ্মা সেতু সহ বহু উন্নয়ন মুলক কাজ এইদেশে হয়েছে যা অনেক উন্নয়নশীল দেশেও এখনো হয়তো নাই কিন্তু এসব সম্পদ যাতে যথাযথভাবে মানুষের কাজে লাগে, তার ব্যবস্হাও সম্মিলিতভাবে করতে হবে। সকলের জন্যে রইলো শুভ কামনা।

স্কারবোরো, কানাডা

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles