22.7 C
Toronto
বুধবার, আগস্ট ১৭, ২০২২

আবারও কোভিড বিধিনিষেধের শঙ্কায় অর্ধেকের বেশি কানাডিয়ান

- Advertisement -
ফোর্ড সরকার প্রদেশের জনস্বাস্থ্য কর্মকর্তারা হেমন্তের দিকে তাকিয়ে আছেন এবং সংক্রমণ প্রতিরোধে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের বুস্টার ক্যাম্পেইনের পরিকল্পনা করছেন

হেমন্তে কোভিড-১৯ ঢেউয়ের কারণে আবারও জনজীবনে লক্ষ্যণীয় মাত্রায় বিধিনিষেধ ফিরে আসতে পারে বলে আশঙ্কায় আছেন অর্ধেকের বেশি কানাডিয়ান। তাদের ভয়, আবারও বাধ্যতামূলকভাবে মাস্ক পরিধানের পাশাপাশি সামাজিক দূরত্ব মেনে চলা এবং জমায়েত ছোট করে আনতে হতে পারে। ন্যানোসের নতুন সমীক্ষায় এমনটাই উঠে এসেছে।

ন্যানোস রিসার্চের সমীক্ষা অনুয়ায়ী, ৫৫ শতাংশ কানাডিয়ান কোভিড-১৯ সংক্রান্ত বিধিনিষেধ নিয়ে উদ্বেগে আছেন। ২০২২ সালের গোড়ার দিকে অন্টারিওতে এসব বিধিনিষেধের অবসান হয়।

দৈবচয়নভিত্তিতে প্রাপ্ত বয়স্ক এক হাজার ২ জন কানাডিয়ানের ওপর সমীক্ষাটি চালানো হয়। সমীক্ষায় অংশগ্রহণকারী ১৬ শতাংশ কানাডিয়ান হেমন্তে কোভিড-১৯ ঢেউ বিধিনিষেধ ফিরিয়ে আনতে পারে বলে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। এ নিয়ে কিছুটা হলেও উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ৩৯ শতাংশ কানাডিয়ান।

তবে বিধিনিষেধ ফিরে আসা নিয়ে উদ্বিগন্ নন বলে জানিয়েছেন সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ২৩ শতাংশ কানাডিয়ান। কিছু মাত্রায় উদ্বিগ্ন না হওয়ার কথা জানিয়েছেন ১৯ শতাংশ এবং ২ শতাংশ বলেছেন, এ ব্যাপারে তারা নিশ্চিত নন।

বিধিনিষেধ ফিরে আসা নিয়ে উদ্বেগ সবচেয়ে বেশি আটলান্টিক কানাডা, অন্টারিও এবং কুইবেকের বাসিন্দাদের মধ্যে। উদ্বেগ সবচেয়ে কম প্রেইরি ও ব্রিটিশ কলাম্বিয়ার লোকজনের মধ্যে। অন্টারিওতে কোভিড-১৯ এর সংক্রমণ বাড়তির দিকে রয়েছে এবং কিছু রোগতত্ত্ববিদ ও প্রদেশের সায়েন্স অ্যাডভাইজরি টেবিল একে বলছে সপ্তম ঢেউ।

তবে ফোর্ড সরকার প্রদেশের জনস্বাস্থ্য কর্মকর্তারা হেমন্তের দিকে তাকিয়ে আছেন এবং সংক্রমণ প্রতিরোধে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের বুস্টার ক্যাম্পেইনের পরিকল্পনা করছেন।

একই সমীক্ষায় অংশগ্রহণকারীদের এই গ্রীষ্মে ভ্রমণ পরিকল্পনা কী সে ব্যাপারে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল। ৬১ শতাংশ অংশগ্রহণকারীই এই গ্রীষ্মে আন্তর্জাতিক ভ্রমণের পরিকল্পনা নেই বলে জানান। ১৫ শতাংশ ভ্রমণের ইচ্ছা পোষণ করলেও পরিকল্পনা না থাকার কথা জানিয়েছেন। এই গ্রীষ্মে বিদেশ ভ্রমণের পরিকল্পনা আছে বলে জানিয়েছেন সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ১২ শতাংশ কানাডিয়ান। ৯ শতাংশ বলেছেন, তাদের পরিকল্পনা ছিল কিন্তু বাতিল করেছেন অথবা পরিকল্পনা আছে কিন্তু বাতিল করতে হতে পারে।

৫৫ বছর বয়সী ৬৯ শতাংশ কানাডিয়ান ও অন্যরা আন্তর্জাতিক ভ্রমণের কোনো পরিকল্পনা না থাকার কথা জানিয়েছেন। একই মন্তব্য করেছেন ১৮ থেকে ৩৪ বছর বয়সী ৫৩ দশমিক ৪ শতাংশ কানাডিয়ান।

আন্তর্জাতিক ভ্রমণের পরিকল্পনাকারীদের তালিকায় এখনও শীর্ষে আছেন কুইবেক ও অন্টারিওর বাসিন্দারা যথাক্রমে ১৪ ও ১৩ শতাংশ। আন্তর্জাতিক ভ্রমণের পরিকল্পনা সবচেয়ে কম আটলান্টিক ও প্রেইরি রিজিয়নে যথাক্রমে ৯ দশমিক ৫ ও ৭ দশমিক ৮ শতাংশ।
সেলফোন ও ল্যান্ডলাইনে ৩০ জুন থেকে ৪ জুলাই পর্যন্ত সমীক্ষাটি পরিচালনা করা হয়।

 

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles