15.7 C
Toronto
শুক্রবার, আগস্ট ১২, ২০২২

আবারও তদন্তের মুখে মেরিনল্যান্ড

- Advertisement -
জনসমক্ষে সামুদ্রিক প্রাণী ব্যবহারের অভিযোগে মেরিনল্যান্ডের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করার কথা জানিয়েছে নায়াগ্রা পুলিশ

জনসমক্ষে সামুদ্রিক প্রাণী ব্যবহারের অভিযোগে মেরিনল্যান্ডের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করার কথা জানিয়েছে নায়াগ্রা পুলিশ। এক বছরের মধ্যে পার্ক কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে এটা তৃতীয় অভিযোগ এবং দ্বিতীয় তদন্ত। ২০২১ সালের অক্টোবরে পার্ক কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে পুলিশের কাছে দুটি অভিযোগ করা হয়। এরপপর পুলিশ এ ঘটনার তদন্ত শুরু করে এবং প্রাণিদের বিরুদ্ধে নিষ্ঠুরতার একটি অভিযোগ পার্ক কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে দায়ের করা হয়।

অভিযোগে মেরিনল্যান্ডের বিরুদ্ধে কানাডার ক্রিমিনাল কোডের ৪৪৫.২(৪) ধারা লঙ্ঘনের কথা বলা হয়। এই ধারায় বন্দি তিমি ও ডলফিনকে বিনোদনের উদ্দেশে মানুষের সামনে প্রদর্শন নিষিদ্ধ করা হয়েছে। তদন্তকারীদের অভিযোগ, পার্ক কর্তৃপক্ষ বিনোদনের উদ্দেশে প্রাণিগুলো মানুষের সামনে প্রদর্শন করেছে এবং এটা আইনের লঙ্ঘন।

প্রাণিদের বিরুদ্ধে নিষ্ঠুরতার একটি অভিযোগ মাথায় নিয়েই মে মাসে পার্ক খুলে দেওয়া হয়। নায়াগ্রা রিজিয়নাল পুলিশ
সার্ভিসেস (এনআরপিএস) বৃহস্পতিবার মেরিনল্যান্ডের দ্বিতীয় তদন্তের ঘোষণা দেয়।

তবে মেরিনল্যান্ডের দাবি, তারা কোনো আইন লঙ্ঘন করেনি এবং তাদের প্রদর্শন ছিল শিক্ষামূলক। পার্ক কর্তৃপক্ষ তাদের ওয়েবসাইটে বলেছে, প্রত্যেক প্রদর্শনীতে অংশ নেবে কিনা সে ব্যাপারে সিদ্ধান্ত গ্রহণের ক্ষমতা আমাদের সামদ্রিক প্রাণিদের দেওয়া আছে এবং প্রত্যেক প্রদর্শনীতে কোন প্রাণি আসবে তার ভিত্তিতে আমাদের পরিকল্পনা পরিবর্তীত হয়।

পার্ক কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে গত বছরের নভেম্বরে একটি অভিযোগ করেছিলেন যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক প্রাণিদের নিয়ে কাজ করা সংগঠন লাস্ট চান্স ফর অ্যানিমেলের (এলসিএ) প্রতিনিধি আইনজীবী মিরান্ডা ডেসা। এলসিএর একজন সদস্য ২০২১ সালের ৩ আগস্ট থেকে ১৬ আগস্ট পর্যন্ত মেরিনল্যান্ডে প্রবেশ করেন এবং ডলফিনের পারফর্ম্যান্স প্রত্যক্ষ করেন।
This article was written by Sohely Ahmed Sweety as part of the LJI.

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles