15.4 C
Toronto
শনিবার, আগস্ট ১৩, ২০২২

দুই যুগ পর মিলল খুনির পরিচয়!

- Advertisement -
২২ বছর আগে নিহত ১৩ বছরের কিশোরী মিনারলিজ সোরিয়ানো

চাচাতো বোন মিনারলিজের খুনি সম্পর্কে পুলিশের কাছ থেকে সুসংবাদের জন্য দীর্ঘ ২২ বছর ধরে অপেক্ষা করেছেন ওমর সোরিয়ানো নামের এক যুবক। অবশেষে তিনি পেলেন কাঙ্ক্ষিত সেই সুখবর। প্রায় দুই যুগ পর জানা গেল খুনির পরিচয়!

সিএনএন-এর প্রতিবেদন থেকে জানা যায়, ১৯৯৯ সালের এক শীতের দিনে স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে নিখোঁজ হন ১৩ বছর বয়সী ওই কিশোরী।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, নিখোঁজ হওয়ার কয়েকদিন পর তার মরদেহ নিউইয়র্কের ব্রনক্স ডিস্ট্রিক্টের একটি ডাম্পস্টারে পাওয়া যায়। পরে পুলিশ ঘটনা তদন্তের আশ্বাস দিলেও তা যেন ঠাণ্ডায় জমে যায়, কিন্তু প্রায় চার বছর আগে সেটাকে পুনরুজ্জীবিত হয়।

সোরিয়ানো বলেন, ‘এটা ছিল একটা সরাসরি আঘাত’। এসময় তিনি তার ছোট চাচাতো বোনের সঙ্গে কাটানো সময়ের কথা, তার চুল বেঁধে দেয়া, একসাথে খেলা করা এবং তাকে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নিয়ে যাওয়ার সময়গুলোর কথা স্মরণ করে বলেন, ও ছিল আমার আপন বোনের মতোই। ওকে আমরা ‘মিনি’ বলেই ডাকতাম।

সোরিয়ানো গত মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) বেশ খানিকটা আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েন, যখন শহরের তদন্ত কর্মকর্তারা ঘোষণা দেয় যে, তারা অবশেষে মিনারলিজ সোরিয়ানোর হত্যাকারীকে খুঁজে পেয়েছেন। তাঁরা যে ভবনে থাকতেন ঘাতক ব্যক্তি সেই ভবনেরই সাবেক বাসিন্দা বলেই জানিয়েছে তদন্ত কর্মকর্তারা।

এনওয়াইপিডি এবং ব্রনক্স ডিস্ট্রিক্ট অ্যাটর্নি অফিসের কর্মকর্তারা বলেছেন, তারা পারিবারিক ডিএনএ ব্যবহার করে এই অপরাধের সমাধানে পৌঁছেছেন। যা শহরের জন্য একটি ঐতিহাসিক মাইলফলক হতে চলেছে এবং তদন্তের এই কৌশলটি ব্যবহার করেই এখনও পর্যন্ত মামলাটি চালু রাখা হয়েছে।

এক সংবাদ সম্মেলনে ইন্সপেক্টর নেটিস গিলবার্ট বলেন, ‘এই মামলাটি আধুনিক বিজ্ঞান এবং ঐতিহ্যগত অনুসন্ধানমূলক কাজকে একত্রিত করেছে। যার ফলে একটা নিষ্পাপ কিশোরীকে ন্যায়বিচার পাইয়ে দিতে আমরা কখনও হাল ছেড়ে দেয়নি।’

পুলিশের দেয়া তথ্য মতে, তাঁর নাম জোসেফ মার্টিনেজ। যার বয়স এখন ৪৯। এদিন তাঁর বিরুদ্ধে দ্বিতীয়-ডিগ্রী হত্যার দুটি অভিযোগ দায়ের করা হয়। যদিও মার্টিনেজ এখনও দোষী প্রমাণিত হননি এবং আগামী মার্চে আদালতের পরবর্তী তারিখ পর্যন্ত তাঁকে জামিন ছাড়াই বন্দী রাখা হচ্ছে।

তবে তাঁকে নির্দোষ দাবি করে আদালতে নিযুক্ত মার্টিনেজের আইনজীবী ট্রয় স্মিথ সিএনএনকে বলেন, ‘পুরো ৪৯ বছরে মার্টিনেজের কোনও অপরাধমূলক ইতিহাস নেই। হতবাক হয়ে বলতে হয় যে, তিনি এখনও তাঁর নির্দোষতা বজায় রেখেছেন।’

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles