27.8 C
Toronto
শনিবার, জুলাই ১৩, ২০২৪

ফুটপাতে ঘুমন্ত যুবককে পিষে মারল সংসদ সদস্যের মেয়ে

ফুটপাতে ঘুমন্ত যুবককে পিষে মারল সংসদ সদস্যের মেয়ে
ছবি সংগৃহীত

ভারতের চেন্নাইয়ে ফুটপাতে ঘুমন্ত এক যুবকের ওপর দিয়ে গাড়ি চালানোর অভিযোগ উঠেছে এক সংসদ সদস্যের মেয়ের বিরুদ্ধে। সোমবার (১৭ জুন) রাতে মদ্যপ অবস্থায় গাড়ি চালাচ্ছিলেন ওই তরুণী। এই ঘটনায় প্রাণ হারান সূর্য নামের ওই যুবক। ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম আনন্দবাজার এ খবর জানিয়েছে।

জানা যায়, অভিযুক্ত ওই মেয়ের বাবা রাজ্যসভার একজন সংসদ সদস্য। তাকে গ্রেপ্তার করলে কিছু ক্ষণের মধ্যেই জামিনে মুক্তিও পেয়ে যান তিনি। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় উত্তেজনা ছড়িয়েছে।

- Advertisement -

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ওয়াইএসআর কংগ্রেস দলের সংসদ সদস্য বেদ মস্তান রাওয়ের মেয়ে মাধুরী তার এক বান্ধবীর সঙ্গে বিএমডব্লিউ গাড়ি চালাচ্ছিলেন।

বসন্তনগর এলাকায় ফুটপাথের ওপর গাড়ি তুলে দেন তিনি। সেখানে ঘুমন্ত এক যুবক গাড়ি চাপা পড়েন।
দুর্ঘটনার পরই গাড়ি নিয়ে এলাকা ছেড়ে পালান তিনি। রক্তাক্ত অবস্থায় সূর্য নামক ওই যুবককে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যান স্থানীয়রা।

তবে চিকিৎসকেরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

এক পুলিশ অফিসার জানান, ঘটনার তদন্ত শুরু হয়েছে। তবে জামিনে ছাড়া পেয়েছেন অভিযুক্ত। পুলিশ জানিয়েছে, ওই যুবক পেশায় ছিলেন একজন চিত্রশিল্পী। মাত্র আট মাস আগে বিয়ে বিয়ে করেছিলেন তিনি।

অভিযুক্তের বিরুদ্ধে কঠোর শাস্তির দাবি জানিয়ে থানায় জড়ো হন নিহতের আত্মীয়স্বজন ও স্থানীয়রা। এলাকার সিসিটিভি ফুটেজ দেখে পুলিশ জানায়, যে গাড়িটি সূর্যকে চাপা দিয়েছে সেটি বেদ রাওয়ের সংস্থার গাড়ি। সেই সূত্র ধরে মাধুরীকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তবে গ্রেপ্তার হওয়ার পরপরই থানা থেকেই জামিন পেয়ে যান তিনি।

২০২২ সালে বেদকে রাজ্যসভায় পাঠায় জগন্মোহন রেড্ডির দল। তবে তার আগে তিনি বিধায়কও ছিলেন। রাজনীতির সঙ্গে তার বহু পুরোনো সম্পর্ক। মাধুরীর জামিন পাওয়ার ঘটনা নিয়ে ক্ষুব্ধ অনেকেই।

গত ১৯ মে পুণেতে একটি পোর্শের ধাক্কায় দুই তরুণ ইঞ্জিনিয়ারের মৃত্যু হয়। গাড়িটি চালাচ্ছিল ১৭ বছরের কিশোর। সে নেশাগ্রস্ত অবস্থায় ছিল বলে অভিযোগ। পুলিশ সেই অভিযুক্ত কিশোরের বাবা, মা ও ঠাকুরদাকে গ্রেপ্তার করেছে। নাবালক হওয়ায় অভিযুক্তকে অবজ়ার্ভেশন হোমে রাখা হয়েছে। ওই ঘটনাতে ক্ষমতার প্রভাব খাটানো হয়।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles