খালেদা জিয়াকে আবারও বিদেশে নিতে বললেন তার চিকিৎসক

- Advertisement -
বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।

হাসপাতালে চিকিৎসা নেওয়ার পর রোববার (৭ নভেম্বর) সন্ধ্যায় গুলশানের বাসায় ফিরেছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।

সন্ধ্যায় বাসায় ফেরার পর তার ব্যক্তিগত চিকিৎসক ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন বিএনপি চেয়ারপারসনের শারীরিক অবস্থার বিষয়ে সাংবাদিকদের অবহিত করেন।

- Advertisement -

তিনি বলেন, দেশি-বিদেশি চিকিৎসকদের সমন্বয়ে গঠিত মেডিকেল বোর্ডের সদস্যরা আবারও তাকে দেশের বাইরে চিকিৎসার পরামর্শ দিয়েছেন। এ সময় সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তার জন্য দোয়া চেয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন বলেন, চেয়ারপারসন আগে থেকে বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত ছিলেন, আছেন। তার সুচিকিৎসা হয়নি চার বছর যাবত। তিনি যখন জেলখানায় ছিলেন তখন সত্যিকার অর্থে কোনো সুচিকিৎসার বন্দোবস্ত করা হয়নি। এ অবস্থায় উনার সুচিকিৎসা অত্যন্ত জরুরি।

- Advertisement -

তিনি আরও বলেন, তার পরবর্তী চিকিৎসা একটি মাল্টিডিসিপ্লিনারি অ্যাডভান্স ডেভেলপ সেন্টারে যেন হয় সে বিষয়ে এবারও চিকিৎসকরা পুনরায় পরামর্শ দিয়েছেন।

- Advertisement -

তিনি বলেন, বিদেশে যাওয়ার জন্য খালেদা জিয়ার পরিবার আবেদন করেছিল। পরবর্তীতে সেটি কিন্তু বাস্তবতার মুখ দেখেনি। এবার যখন প্রায় ছয় সপ্তাহ যাবত তার শরীরে জ্বর আসছিল তখন চিকিৎসকরা আবারও পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর হাসপাতালে ভর্তির পরামর্শ দেন।

গত ১২ অক্টোবর হাসপাতালে ভর্তি হন খালেদা জিয়া। ২৬ দিন পর তিনি বাসায় ফিরেছেন। আল্লাহর কাছে দোয়া চেয়েছেন যাতে সুচিকিৎসার মাধ্যমে আবারও আপনাদের কাছে ফেরত আসতে পারেন, বলেন এ চিকিৎসক।

খালেদা জিয়া সন্ধ্যায় গুলশানের বাসায় ফেরার সময় দলের নেতাকর্মীরা ভিড় করেন। তাদের উদ্দেশে গাড়ির ভেতর থেকেই খালেদা জিয়া হাত নেড়ে শুভেচ্ছা জানান। তার ব্যক্তিগত চিকিৎসক জানিয়েছেন, বায়োপসি রিপোর্টে তার শরীরে ক্যান্সারের উপাদান মেলেনি।

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles