18.2 C
Toronto
মঙ্গলবার, মে ২১, ২০২৪

নারী শিক্ষা বন্ধ করায় তালিবানের বিচার চান সাবেক ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

নারী শিক্ষা বন্ধ করায় তালিবানের বিচার চান সাবেক ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী

সাবেক ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী ও বৈশ্বিক শিক্ষা বিষয়ক জাতিসংঘের বিশেষ দূত গর্ডন ব্রাউন বলেছেন, তালিবান আফগান নারী ও মেয়েদের তাদের মৌলিক অধিকার থেকে বঞ্চিত করছে। আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) উচিত হবে তা নিয়ে তদন্ত করা এবং তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা।

- Advertisement -

গতকাল মঙ্গলবার (১৫ আগস্ট) এক ভিডিও ব্রিফিংয়ে তিনি এ কথা বলেন।

গর্ডন ব্রাউন বলেন, আমরা যে আইনি মতামত পেয়েছি তাতে দেখা যাচ্ছে আফগান মেয়েদের শিক্ষা থেকে এবং নারীদের চাকরি থেকে বঞ্চিত করা মূলত লিঙ্গ বৈষম্য, যাকে মানবতার বিরুদ্ধে অপরাধ হিসেবে গণ্য করা উচিত। আইসিসিতে তালিবানের বিচার হওয়া উচিত।

২০০৭ থেকে ২০১০ সাল পর্যন্ত ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্বে ছিলেন গর্ডন ব্রাউন। তিনি এমন সময় এই মন্তব্য করলেন, যখন আফগানিস্তানে তালিবান তাদের ক্ষমতা গ্রহণের দ্বিতীয় বার্ষিকী পালন করছিল।

গর্ডন ব্রাউন জানান, তিনি আইসিসির সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করে চলেছেন। আদালতকে তদন্ত করে দায়ীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করার পাশাপাশি মুসলিম রাষ্ট্রগুলোকেও আফগানিস্তানের কান্দাহারে একটি প্রতিনিধিদল পাঠানোর আহ্বান জানান তিনি।

সাবেক ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বলেন, তালিবানের সর্বোচ্চ নেতা হিবাতুল্লাহ আখুনজাদা ও তার ঘনিষ্ঠ সহযোগীদের কাছে প্রতিনিধিদল পাঠিয়ে নারীদের শিক্ষা ও কর্মের ওপর আরোপিত নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে বলতে হবে। কোরআন এবং ইসলামে এ ধরনের নিষেধাজ্ঞার কোনও ভিত্তি নেই।

ব্রাউন আরও বলেন, তালিবানকে বলা হোক যদি স্কুলগুলো আবার খুলে দেওয়া হয়, তাহলে গত ২০ বছর ধরে শিক্ষা খাতে যে সাহায্য দেওয়া হচ্ছিল এবং তা পুনর্বহাল করা হবে।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles