13.3 C
Toronto
শুক্রবার, অক্টোবর ৭, ২০২২

ভ্যাকসিন পাসপোর্ট হবে ডিজিটাল

- Advertisement -

ভ্যাকসিন পাসপোর্ট হবে ডিজিটাল - the Bengali Times
অটোয়াতে বৃহস্পতিবার জাস্টিন ট্রুডো বলেন, ভ্যাকসিনেশনের স্বপক্ষে একটি মানসম্মত, জাতীয় প্রমাণপত্র চালু করার ব্যাপারে সব প্রদেশ ও অঞ্চল একমত হয়েছে। এটা জানাতে পেরে আমি খুশি..ছবি/পিএম অফিস

আন্তর্জাতিক ভ্রমণের ক্ষেত্রে আলাদা ফেডারেল নথি প্রদানের পরিবর্তে প্রদেশ ও অঞ্চলগুলো তাদের নিজস্ব ভ্যাকসিন পাসপোর্ট সামঞ্জস্যপুর্ণ করে নেওয়ার ব্যাপারে একমত হয়েছে। স্মার্ট হেলথ কার্ডের জন্য আন্তর্জাতিক যে মানদন্ড তার ভিত্তিতে এগুলোও দেখতে ও নিরাপত্তা পদ্ধতি একই রকম হবে। জালিয়াতি বন্ধ করতে হেলথ কার্ডে বিশেষ বৈশিষ্ট্যের সন্নিবেশ ঘটানো হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোও অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক ভ্রমণের ক্ষেত্রে নতুন জাতীয় ভ্যাকসিন পাসপোর্টের বিষয়ে ফেডারেল ও প্রাদেশিক সরকারগুলো মতৈক্যে পৌঁছেছে বলে জানিয়েছেন।

নিউফাউন্ডল্যান্ড, ল্যাব্রাডর, নোভা স্কশিয়া, কুইবেক, অন্টারিও, নুনাভাট, সাস্কেচুয়ান, নর্থওয়েস্ট টেরিটরি ও ইউকন এরই মধ্যে ভ্যাকসিনেশনের স্বপক্ষে নতুন প্রমাণপত্রের প্রচলন শুরু করেছে। উপরের কোনায় ‘কানাডা’ লেখা একে আলাদা করেছে।

অটোয়াতে বৃহস্পতিবার জাস্টিন ট্রুডো বলেন, ভ্যাকসিনেশনের স্বপক্ষে একটি মানসম্মত, জাতীয় প্রমাণপত্র চালু করার ব্যাপারে সব প্রদেশ ও অঞ্চল একমত হয়েছে। এটা জানাতে পেরে আমি খুশি।

ভ্যাকসিন পাসপোর্ট হবে ডিজিটাল এবং এতে ভ্যাকসিনেশন সংক্রান্ত তথ্য সম্বলিত একটি কিউআর কোড থাকবে। কাগুজে ভ্যাকসিন পাসপোর্টও গ্রহণযোগ্য বিবেচিত হবে। ভ্যাকসিনেশস সংক্রান্ত প্রমাণপত্রে স্বাস্থ্য সম্পর্কিত যেসব তথ্য থাকবে তার মধ্যে আছে বাহকের নাম, ভ্যাকসিন সম্পর্কিত তথ্য যেমন ভ্যাকসিনের ধরণ, লট নাম্বার, ভ্যাকসিন নেওয়ার তারিখ ও ডোজ সংখ্যা।

জাতীয় এ নথিটি মানসম্পন্ন করতে প্রদেশগুলো নেতৃত্ব দেবে এবং ফেডারেল সরকার এ কাজে ১০০ কোটি ডলার সরবরাহের প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। নোভা স্কশিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রী মিশেল থম্পসন বৃহস্পতিবার বলেন, শুরু থেকেই আমাদের প্রদেশের ব্যবস্থাটি ফেডারেল উদ্যোগের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে করা হয়েছে। এতে কোনো ব্যাঘাত ঘটবে না।

তবে অন্যান্য প্রদেশের ক্ষেত্রে কিছু পরিবর্তনের প্রয়োজন পড়বে। ব্রিটিশ কলাম্বিয়ার প্রিমিয়ার জন হোরগান বলেন, সর্বপ্রথম যেসব প্রদেশ ভ্যাকসিনেশনের স্বপক্ষে প্রমাণপত্র চালু করেছে ব্রিটিশ কলাম্বিয়া তার অন্যতম।

Related Articles

Latest Articles