22.1 C
Toronto
বুধবার, জুন ১২, ২০২৪

উগান্ডায় ‘সমকামী’ পরিচয় দিলেও সাজা পেতে হবে

উগান্ডায় ‘সমকামী’ পরিচয় দিলেও সাজা পেতে হবে
ছবি সংগৃহীত

দক্ষিণ আফ্রিকার দেশ উগান্ডার পার্লামেন্ট সমকামিতা নিয়ে নতুন একটি আইন পাস করেছে। দেশটিতে নিজেকে সমকামী হিসেবে পরিচয় দেওয়াকেও শাস্তিমূলক অপরাধ হিসেবে ঘোষণা। একইসঙ্গে সমলিঙ্গের সম্পর্কের শাস্তি আরও কঠিন করার প্রস্তাব করা হয়েছে।

বিবিসির খবর অনুসারে, উগান্ডাসহ আফ্রিকার ৩০টিরও বেশি দেশে সমকামী সম্পর্ক নিষিদ্ধ। মঙ্গলবার উগান্ডায় পাস হওয়া নতুন আইন অনুযায়ী, নিজেকে সমকামী দাবি করাও এখন অপরাধ হিসেবে গণ্য করা হবে।

- Advertisement -

সংসদে ভোটাভুটিতে একজন ছাড়া সবাই সমকামিতার বিরুদ্ধে ভোট দিয়েছে। এ আইনের সমর্থকরা বলছেন, সমকামীদের প্রচারণা বন্ধে আইন কঠিন করা অত্যন্ত জরুরি ছিল। এসব পশ্চিমা সংস্কৃতি আফ্রিকার রক্ষণশীল এবং ধর্মীয় ঐতিহ্যগত মূল্যবোধকে হুমকির মুখে ফেলেছে। পার্লামেন্টে পাস হওয়ার পর আইনটি বাস্তবায়নে এখন প্রেসিডেন্টের স্বাক্ষরের দরকার পড়বে। আইন স্বাক্ষর করতে এটিকে প্রেসিডেন্ট ইওওয়েরি মুসেভেনির কাছে পাঠানো হয়েছে।

প্রেসিডেন্ট মুসেভেনি বর্তমান আইন সম্পর্কে এখনও কোনো মন্তব্য করেননি। তবে দীর্ঘকাল ধরেই তিনি সমকামীদের অধিকারের বিরোধিতা করছেন। এর আগে ২০১৩ সালে তিনি সমকামিতাবিরোধী আইন চালু করেন। সে সময় পশ্চিমা দেশগুলো এর তীব্র নিন্দা জানিয়েছিল। তবুও সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসেননি মুসেভিনি। ৭৮ বছর বয়সী এই নেতা একাধিকবার জানিয়েছেন যে, সমকামিতা নিষিদ্ধ নিয়ে পশ্চিমাদের চাপকে তিনি গুরুতর মনে করেন না। তবে তিনি পশ্চিমা দাতা এবং বিনিয়োগকারীদের সাথে সুসম্পর্ক বজায় রাখতে চান।

আইনপ্রনেতা ডেভিড বাহাটি পার্লামেন্টে বলেন, আমরা যা করছি তাদের আমাদের ঈশ্বর খুশি হবেন। আমাদের শিশুদের ভবিষ্যত রক্ষা করার জন্য বিলটি জরুরি ছিল। এটি আমাদের জাতির সার্বভৌমত্ব নিশ্চিত করবে। কারও উচিৎ নয় আমাদের ব্ল্যাকমেইল করা কিংবা ভয় দেখানো।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles