11.3 C
Toronto
শনিবার, নভেম্বর ২৬, ২০২২

ছাত্রকে চড় মারার অভিযোগ ছাত্রলীগ নেত্রীর বিরুদ্ধে

ছাত্রকে চড় মারার অভিযোগ ছাত্রলীগ নেত্রীর বিরুদ্ধে

বাসে সিট রাখাকে কেন্দ্র করে এক শিক্ষার্থীকে চড় মারার অভিযোগ উঠেছে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) শেখ হাসিনা হল শাখা ছাত্রলীগের নতুন সভাপতি কাজী ফাইজা মেহজাবিনের বিরুদ্ধে। বুধবার (৯ নভেম্বর) কুমিল্লা শহর থেকে ক্যাম্পাসের উদ্দেশে ছেড়ে আসা রাত সাড়ে ৮ টার বাসে এ ঘটনা ঘটে।

- Advertisement -

প্রত্যক্ষদর্শীদের সূত্রে জানা যায়, রাত সাড়ে ৮টার বাস কুমিল্লা শহর থেকে ক্যাম্পাসের উদ্দেশে আসার আগে সিট রাখাকে কেন্দ্র করে তর্কাতর্কি হয় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলের ১৩তম ব্যাচের আবাসিক শিক্ষার্থী জাহাঙ্গীর আলম ও শেখ হাসিনা হল শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি কাজী ফাইজা মেহজাবিনের মধ্যে। একপর্যায়ে কাজী ফাইজা মেহজাবিন জাহাঙ্গীরকে থাপ্পড় মারেন।

জাহাঙ্গীর আলম এ বিষয়ে বলেন, আমি এবং আমার এক ফ্রেন্ড সিট রেখেছিলাম বাসে। হটাৎ বাসে উঠে আপু আমার ফ্রেন্ডের রাখা সিট উঠিয়ে দেয় এবং নিজে আমার সিটে বসেন এবং আমার বন্ধুর সিটে ওনার বান্ধবীকে বসান। এ সময় তিনি আমাদের সঙ্গে তুইতোকারি করেন। আমি তখন বলেছিলাম অন্যরা তো আপু বাসে সিট রাখে। তখন তিনি আমাকে থাপ্পড় মারেন।

অভিযুক্ত ছাত্রলীগ নেত্রী ফাইজা মারধরের ব্যাপারে বলেন, আমি চড় মারিনি। আমাদের নিজেদের মধ্যে ঝামেলা, আমাদের পরিচিত ছোটভাইয়ের সঙ্গে ঝামেলা হয়েছে, তর্কাতর্কি হয়েছে। এর বেশি কিছু না।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর কাজী ওমর সিদ্দিকী বলেন, এ বিষয়ে আমাদের কাউকে অবগত করেনি। অবগত করলে আমরা ব্যবস্থা নেব।

এছাড়াও ফাইজার বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময় হলের শিক্ষার্থীদেরকে শারীরিক ও মানসিকভাবে হেনস্তা করার অভিযোগও রয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক শেখ হাসিনা হলের এক আবাসিক শিক্ষার্থী বলেন, আপু বিভিন্ন সময় আমাকে অপদস্ত করেন, বিভিন্নভাবে ভয়ভীতি দেখান, হল থেকে বের করে দেয়ারও হুমকি দেন। আমি খুবই উদ্বিগ্ন আছি। শেখ হাসিনা হলের পদ পাওয়ার পর থেকে তিনি বেপরোয়া হয়ে উঠেন।

এ ব্যাপারে কাজী ফাইজা মেহজাবিন বলেন, এটি যদি তারা (হলের আবাসিক শিক্ষার্থী) বলে আমি বলবো যে একদিন সবাইকে ডাকি তারপর সবার কাছ থেকে রিভিউ নেয়া হোক। আর আমি কখনো কাউকে বের হয়ে যেতে বলিনি।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles