14.4 C
Toronto
রবিবার, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২২

কানাডায় ভাষার বৈচিত্র বাড়ছে

- Advertisement -
ছবি/জিমি হানসেন

কানাডায় নতুন করে বেশি সংখ্যক অভিবাসী আসায় তাদের সঙ্গে করে নিয়ে আসা বিচিত্র ভাষাও বাড়ছে। এর ফলে ইংরেজি বা ফ্রেঞ্চ কোনোটাই মাতৃভাষা নয়, এমন কানাডিয়ানের সংখ্যা রেকর্ড বেড়েছে বলে ২০২১ সালের নতুন জনশুমারির উপাত্তে উঠে এসেছে।

তথ্য অনুযায়ী, ইংরেজি ও ফ্রেঞ্চের বাইরে কানাডায় মাতৃভাষা হিসেবে অন্য ভাষায় কথা বলেন প্রতি চারজনের মধ্যে একজন। পাশাপাশি গত বছর পর্যন্ত প্রায় ১২ শতাংশ কানাডিয়ান বাড়িতে বেসরকারি ভাষায় কথা বলেছেন।

আগামী এক বা দুই প্রজন্ম পর এসব ভাষায় দক্ষতা কমে যাবে বলে মনে করেন স্ট্যাটিস্টিকস কানাডার সেন্টার ফর ডেমোগ্রাফির উপ-প্রধান এরিক ক্যারন-ম্যালেনফ্যান্ট। এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ২০১৬ থেকে ২০২১ সাল পর্যন্ত ইংরেজি ও ফ্রেঞ্চের বাইরে অন্যান্য ভাষায় কথা বলা মানুষের সংখ্যা লক্ষ্যণীয় হারে বেড়েছে। এই প্রবণতার জন্য দায়ী মূলত অভিবাসন। কোভিড-১৯ মহামারির কারণে জনস্বাস্থ্য বিধিনিষেধের কারণে অভিবাসন প্রক্রিয়া শ্লথ হওয়া সত্ত্বেও এটা অব্যাহত ছিল। নতুন অভিবাসীদের গড় বয়স ২৫ থৈকে ৩৫ বছর। এরপর কানাডায় যখন আপনাদের সন্তান জন্ম নেবে তখন বাড়িতে আরও বেশি বেশি ইংরেজি ও ফ্রেঞ্চ ভাষায় কথা বলার চল বাড়বে।

এডমন্টনে বেড়ে ওঠার সময় নিজের ক্যান্টনভাষী পরিবার ও কমিউনিটিতে এই প্রবণতা লক্ষ্য করেন ব্রিটিশ কলাম্বিয়ার স্পিচ-ল্যাঙ্গুয়েজ প্যাথোলজিস্ট জুন চিউং। তিনি বলেন, আমার বাবা-মা হং কং থেকে এখানে অভিবাসন করলেও আমি ও আমার ভাই-বোনদের জন্ম কানাডাতেই। বাবা-মা আমার বড় ভাই ও আমার সাথে চাইনিজ ভাষায় কথা বললেও প্রায় সময়ই আমরা উত্তর দিতাম ইংরেজিতে।

প্রজন্মান্তরে ভাষার এই যে পরিবর্তন সেটাই ছিল তার মাস্টার্সের থিসিসের বিষয়। সেখানে তিনি এটাও দেখিয়েছেন, প্রতি প্রজন্মে কীভাবে তাদের মাতৃভাষার প্রতি দখল হ্রাস পাচ্ছে। তিনি বলেন, দ্বিতীয় প্রজন্মের যখন সন্তান হবে, তাদের ঐতিহ্যবাহী ভাষায় কথা বলার সম্ভাবনা খুবই কম।

একই প্রবণতা দেখা গেছে কুইবেকের বাইরে অধিকাংশ প্রদেশের ফ্রেঞ্চ ভাষাভাষী পরিবারগুলোতেও। ২০১৬ সালে কুইবেকের বাইরে ফ্রেঞ্চ ভাষায় কথা বলা মানুষের হার ছিল ৩ দশমিক ৬ শতাংশ। ২০২১ সালে তা নেমে এসেছে ৩ দশমিক ৩ শতাংশে। এর কারণ হিসেবে স্ট্যাটিস্টিকস কানাডা বলছে, যাদের প্রথম সরকারি ভাষা ফ্রেঞ্চ ছিল তারা বুড়ো হয়ে যাচ্ছেন এবং পরবর্তী প্রজন্মের মধ্যে ভাষাটি সব সময় সঞ্চারিত করে যেতে পারছেন না। অনেক সময় অন্যান্য ভাষা পরিবারের মধ্যে শক্তিশালী স্থান করে নিচ্ছে।

স্ট্যাটিস্টিকস কানাডার তথ্য অনুযায়ী, অভিবাসনের সঙ্গে মিল রেখে কানাডায় দক্ষিণ এশিয়ার ভাষাগুলোয় কথা বলা মানুষের সংখ্যা বাড়ছে। একই কানাডায় সময়ে ইতালিয়ান, পোলিশ ও গ্রিকের মতো ইউরোপীয় ভাষার ঔজ্জ্বল্য কমছে। কানাডায় এখনও সবচেয়ে বেশি মানুষ কথা বলে থাকেন ফ্রেঞ্চ ও ইংরেজি ভাষায়। এই দুইটি সরকারি ভাষার অন্তত একটিতে কথা বলেন কানাডার ৯০ শতাংশ মানুষ।

 

Related Articles

Latest Articles