10.9 C
Toronto
বৃহস্পতিবার, সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২২

প্রধানমন্ত্রীর কাছে চিঠি, ধর্ষকের বিচার চায় মেয়েটি

- Advertisement -
প্রতীকী ছবি

বগুড়ার ধুনট উপজেলায় মুরাদুজ্জামান মকুল (৪৮) নামে এক প্রভাষকের কয়েক দফা ধর্ষণের শিকার হয় এক এসএসসি পরীক্ষার্থী। এ ঘটনায় ওই ছাত্রী অভিযুক্তের বিচার চেয়ে দেশের প্রধানমন্ত্রীর কাছে একটি চিঠি লিখেছে।

শনিবার (১০ সেপ্টেম্বর) সকালে আমাদের প্রতিনিধির কাছে পৌঁছেছে ওই স্কুলছাত্রীর নিজের হাতে লেখা ১০ লাইনের একটি চিঠির ফটোকপি। মেয়েটি ওই চিঠিটি গত ৩ সেপ্টেম্বর ডাকযোগে (পোস্ট অফিস) পাঠিয়েছে প্রধানমন্ত্রীর কাছে।

মুরাদুজ্জামান মকুল উপজেলার শৈলমারি গ্রামের মতিউর রহমানের ছেলে এবং জালশুকা হাবিবর রহমান ডিগ্রি কলেজের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিষয়ের প্রভাষক। ওই স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ মামলায় মুরাদুজ্জামান মকুল প্রায় চার মাস ধরে বগুড়া জেলা কারাগারে আটক রয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রীকে ‘মা’ সম্মোধন করে লেখা স্কুলছাত্রীর ওই চিঠিতে পিতার বয়সী ধর্ষককে পাক হায়নার সাথে তুলনা করেছে। চিঠিতে গেলো রমজান মাসে (৫ এপ্রিল) বিশেষ সময়ে ধর্ষণের সময় নরক যন্ত্রণার চিত্র তুলে ধরেছে সে। পা ধরেও ধর্ষকের হাত থেকে রক্ষা পায়নি। ধর্ষককে নরপশুর সাথে তুলনা করে তার সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি করেছে মেয়েটি। বিচার না পেলে ‘বাঁচবো না’ বলে চিঠিতে উল্লেখ করেছে।

ধুনট পৌর এলাকার দক্ষিণ অফিসারপাড়ার বাসিন্দা ওই ছাত্রী। স্থানীয় একটি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এ বছর এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেবে। মুরাদুজ্জামান মকুল স্কুলছাত্রীর বাবার বাসায় ভাড়া থাকতো। এ অবস্থায় মকুল ৩ মার্চ থেকে ১২ এপ্রিল পর্যন্ত কয়েক দফা ধর্ষণ করেছে মেয়েটিকে এবং ওই ধর্ষণের দৃশ্য মুঠোফোনে ভিডিও ধারণ করে রাখে।

এ ঘটনায় স্কুলছাত্রীর মা বাদী হয়ে ১২ মে মুরাদুজ্জামান মকুলে বিরুদ্ধে ধুনট থানায় মামলা দায়ের করেন। পুলিশ ওই দিনই ধর্ষণের ভিডিও ধারণকৃত দুটি মোবাইল ফোনসহ মুরাদুজ্জামানকে গ্রেপ্তার করে কারাগারে পাঠিয়েছে। এদিকে ডাক্তারী পরীক্ষায় মেয়েটিকে ধর্ষণের আলামত মিলেছে। বর্তমানে মামলাটি তদন্ত করছে বগুড়া জেলা পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)।

উল্লেখ্য, স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ মামলাটি প্রথমে ধুনট থানার ওসি কৃপা সিন্ধু বালা তদন্ত করেছেন। কিন্ত তার বিরুদ্ধে ধর্ষণের আলামত নষ্ট করার অভিযোগ করেন মামলা বাদী। ফলে মামলাটি তদন্তের জন্য ডিবিতে হস্তান্তর করা হয়। ওই সময় একই অভিযোগে ওসি কৃপা সিন্ধু বালাকে ধুনট থানা থেকে পাবনা জেলায় বদলি করা হয়।

Related Articles

Latest Articles