-4.6 C
Toronto
বৃহস্পতিবার, জানুয়ারী ২৭, ২০২২

হার্ট অ্যাটাকের আগেই শরীরে যেসব লক্ষণ দেখা দেয়

- Advertisement -

হৃদরোগ এবং স্ট্রোক বিশ্বব্যাপী অকাল মৃত্যুর বড় কারণ। হার্ট অ্যাটাক হয় সাধারণত হৃদপিণ্ডে পর্যাপ্ত রক্ত চলাচল কমে গেলে বা বন্ধ হয়ে গেলে। অথবা রক্ত চলাচলের শিরা-উপশিরাগুলোতে কোনো ব্লক হলে। বিশেষজ্ঞদের মতে, অল্প বয়সে হার্ট অ্যাটাকের সমস্যা সম্প্রতি বেশ বেড়েছে। তাদের মতে ইদানীং হার্টের সমস্যা নিয়ে যারা হাসপাতালে ভর্তি হচ্ছেন, তাদের অনেকেই কমবয়সী। তবে হার্ট অ্যাটার্কের আগে শরীর কিন্তু নিজে থেকেই জানান দেয়। কিন্তু অনেকেই সে সব লক্ষণ চেপে যান। তাই যে সব বিষয়ের উপর নজর রাখবেন-

- Advertisement -

বুকে ব্যথা-
হার্টের সমস্যার অন্যতম লক্ষণ হল বুকে ব্যথা এবং অস্বস্তি। এই রকম কোনও সমস্যা হলে একদমই হেলাফেলা নয়। আমেরিকান হার্ট অ্যাসোসিয়শনের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, রক্তচাপ ওঠানামা করলে, বুকের মধ্যে চেপে বসা ব্যথা থাকলে এবং বুকের ঠিক মাঝখানে ব্যথা করলে অবিলম্বে চিকিৎসকের কাছে যান। আর এই ব্যথা যদি এক মিনিটের বেশি হয় তাহলে কিন্তু রোগীকে হাসপাতালে নিয়ে যেতে বেশি দেরি করবেন না।

পিঠে ব্যথা-
ক্রমাগত পিঠে ব্যথাও কিন্তু হতে পারে হার্টের সমস্যার লক্ষণই। সব সময় যে বুকে ব্যথা হবে এমনটা নাও হতে পারে। আর মেয়েদের ক্ষেত্রে এই পিঠে ব্যথা বেশি দেখা যায়। আর এসব কিন্তু হার্টের সমস্যার পূর্ব লক্ষণ।

চোয়ালে ব্যথা-
চোয়ালে ব্যথা বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই দাঁতের সমস্যার কারণ হিসেবে আমরা মনে করি। অনেকেই ভাবেন মাড়ির সমস্যা থেকে হয়তো ব্যথা হচ্ছে। এই চোয়ালে ব্যাথাও কিন্তু হতে পারে হার্ট অ্যার্টাকের পূর্ব লক্ষণ। যদি কেউ কোনও কারণে বুকে সংক্রমণ, শ্বাসকষ্ট, সর্দি-কাশির মতো সমস্যায় ভোগেন এবং সেই সঙ্গে চোয়ালে ব্যথা হয় তাহলে অবিলম্বে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

ঘাড়ে ব্যথা-
হার্ট অ্যার্টেকের অন্যতম কারণ হল হার্টের পেশিতে রক্ত সঞ্চালন বন্ধ হয়ে যাওয়া কিংবা হঠাৎ রক্ত জমাট বেঁধে যাওয়া। বুক থেকে ব্যথা শুরু হয়ে তা ঘাড় পর্যন্ত পৌঁছে যায় অবং অনেক ক্ষেত্রেই ঘাড় লক হয়ে যায়। লএই অবস্থায় আসার আগেই চিকিৎসকের কাছে যান। সমস্যার কথা বলুন। অতিরিক্ত চা থেকেও এই সমস্যা হয়। তবে হৃদরোগের আভাস দেয় এই ব্যথা।

বাঁ হাতে ব্যথা-
যদি কোনও কারণে হার্টের মধ্যে রক্ত সঞ্চালনে সমস্যা হয় তাহলে কিন্তু বাঁ হাতে ব্যথা হয়। আচমকা এই হাতে ব্যাথাও হতে পারে হৃদরোগের পূর্ববর্তী লত্রণ। মোটেই অবহেলা নয়।

হার্টের সমস্যা হচ্ছে বুঝতে পারলে প্রাথমিক আবশ্যকর্তব্য-

আচমকা কারোর হার্ট অ্যাটার্ক হলে কিংবা বুকে অস্বস্তি হলে প্রথমেই তাকে সিপিআর দিন। রোগীকে চিৎ করে শুইয়ে তার পালস আছে কিনা দেখে নিন। এরপর বুকের পাঁজরের মধ্যে চাপ দিন অন্তত ৩০ বার এবং সেই সঙ্গে রোগীর মুখ খুলে জোরে দুইবার শ্বাস দিতে হবে। এবং ঘটনার কয়েক মিনিটের মধ্যেই নিয়ে যান নিকটবর্তী কোনও হাসপাতালে।

- Advertisement -

Related Articles

- Advertisement -

Latest Articles