27.7 C
Toronto
বৃহস্পতিবার, জুন ২০, ২০২৪

‘নিজের হাতে রেপিস্টকে মেরে শাস্তি দিলাম’

‘নিজের হাতে রেপিস্টকে মেরে শাস্তি দিলাম’
ভাটারায় যুবকের লাশ উদ্ধার

রাজধানীর ভাটারা থানা এলাকায় অ্যাপার্টমেন্ট থেকে এক যুবকের অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তার নাম আরিফুল ইসলাম (৩০)।

শনিবার সন্ধ্যায় তার লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ। লাশের পাশ থেকে একটি চিরকুট ও বিয়ের নোটারি করা হলফনামা উদ্ধার করা হয়েছে।

- Advertisement -

পুলিশের ধারণা, আরিফুলের স্ত্রী পারভীন আক্তার তাকে হত্যা করে কানাডায় চলে গেছে। আরিফুল জাপানে থাকতেন বলে প্রাথমিক তথ্য পেয়েছে পুলিশ। লাশের পাশ থেকে উদ্ধার চিরকুটে লেখা রয়েছে, ‘আমার জীবনের শান্তি নষ্ট করে দিয়েছে এই রেপিস্ট। ব্ল্যাকমেইলার সে। তার নিজের ইচ্ছায় আমার হাতে ধরা দিয়েছে। নিজের হাতে এই রেপিস্ট ব্ল্যাকমেইলারকে মেরে শাস্তি দিলাম।’

ঢাকা মহানগর পুলিশের গুলশান বিভাগের বাড্ডা অঞ্চলের সহকারী কমিশনার (এসি) রাজন কুমার সাহা যুগান্তরকে জানান, হত্যাকারীকে খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে।

জানা গেছে, আরিফুলের বাড়ি নরসিংদীর রায়পুরায়। তার বাবার নাম শাজাহান শিকদার। ১৭ মে আরিফুল ও পারভীন আক্তার স্বামী-স্ত্রী পরিচয় দিয়ে ভাটারার ওই অ্যাপার্টমেন্ট ভাড়া নেয়। শনিবার অ্যাপার্টমেন্ট কর্তৃপক্ষ ফোন করে পুলিশকে লাশের বিষয়টি জানায়। পরে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে। সিআইডির ক্রাইমসিন পর্যবেক্ষণ করে জানায়, লাশের বুকে ও গলায় ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

আরিফুলের পরিবারের বরাত দিয়ে পুলিশ জানিয়েছে, আরিফুল এক বছর ধরে জাপানে বসবাস করছে। জাপানে আয়েশা (জাপানি নাম নাচুকি) নামে এক মেয়ের সঙ্গে গত বছর আরিফুলের বিয়ে হয়। পারভীন আক্তারের সঙ্গে আরিফের প্রেম ছিল, তবে তার সঙ্গে বিয়ে হয়েছে কি না তা পরিবার জানে না।

আরিফের পরিবারের ভাষ্য পারভীন কানাডা প্রবাসী, কানাডায় তার স্বামী রয়েছে। তার নাম বাবু। আরিফের বোন পুলিশকে জানায়, জাপান থেকে তার ভাবি (আয়েশা) শনিবার ফোন করে বলে, আরিফুল দেশে গেছে। কিন্তু তার কোনো খোঁজখবর পাচ্ছি না

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles