18.5 C
Toronto
বুধবার, জুন ১২, ২০২৪

মৃত স্বামীর সঙ্গে ৪ বছর ঘুমিয়েছেন তিনি

মৃত স্বামীর সঙ্গে ৪ বছর ঘুমিয়েছেন তিনি

দীর্ঘ চার বছর ধরে স্বামীর মমি করা মৃতদেহের সাথে রাত্রিযাপন করেছেন স্বেতলানা নামের ৫০ বছর বয়সী একজন রাশিয়ান নারী। প্রাচীন মিশরীয় দেবতার দ্বারা অনুপ্রাণিত হয়ে পালন করেছেন বিশেষ কিছু গুপ্ত আচার অনুষ্ঠানও।

- Advertisement -

সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে, রাশিয়ার একজন সমাজকর্মী সম্প্রতি স্বেতলানার সন্তানদের সাথে কথা বলে, ওই মমি করা মৃতদেহটি আবিষ্কার করেন। যদিও স্বেতলানা তার স্বামীর মৃতদেহ বিছানায় রেখেছিলেন এবং সন্তানদের সতর্ক করে দিয়েছিলেন কাউকে কিছু না জানাতে। কাউকে জানালে তাদের এতিমখানায় পাঠানো হবে বলে হুমকিও দেন তিনি। বর্তমানে তার মানসিক স্বাস্থ্যের মূল্যায়ন চলছে।

চার বছর আগে স্বেতলানার ৪৯ বছর বয়সী স্বামী ভ্লাদিমির তাদের বিশাল বাড়িতে রহস্যজনক পরিস্থিতিতে মারা গিয়েছিলেন। এই দম্পতি ২০২০ সালের ডিসেম্বরে ঝগড়া এবং মারামারি করেছিলেন বলে জানা গেছে। সেই সময় স্বেতলানা চিৎকার করে তার স্বামীর মৃত্যু কামনা করছিলেন। এর কিছুক্ষণ পর মারা যান ভ্লাদিমির। তখন স্বেতলানা ভেবেছিল সে ভান করছে। পরে তিনি তার স্বামীর মৃতদেহ একটি কম্বলে মুড়ে তাকে তার ঘরে নিয়ে যান।

বাড়িটি তল্লাশি করে পুলিশ মমিকৃত ভ্লাদিমিরের পায়ের কাছে একটি মিশরীয় ক্রস, ট্যারোট কার্ড, তাবিজ এবং পশুর খুলির ছবিসহ একাধিক গোপন জিনিস খুঁজে পায়। ওই বাড়ির শয়নকক্ষগুলোর একটিতে শৃগালের মাথাওয়ালা প্রাচীন মিশরীয় দেবতা আনুবিসের একটি অস্থায়ী মন্দিরও ছিল। এমন ভয়ঙ্কর আবিষ্কারের পর, স্বেতলানার সিজোফ্রেনিয়ার জিনগত প্রবণতা রয়েছে বলে জানায় পুলিশ।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles