23.2 C
Toronto
শনিবার, জুন ২২, ২০২৪

বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের জের : স্ত্রীকে হত্যার পর মাথা রাখলেন হাঁড়িতে

বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের জের : স্ত্রীকে হত্যার পর মাথা রাখলেন হাঁড়িতে
ছবি সংগৃহীত

বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের জেরে স্ত্রীকে হাতুড়ি দিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে এক কাঠমিস্ত্রির বিরুদ্ধে। ভারতের শিলিগুড়ির শিবমন্দির এলাকার নারায়ণপল্লিতে ঘটেছে এ ঘটনা। ইতিমধ্যে অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেছে দেশটির পুলিশ।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, হত্যার পর প্রমাণ নষ্ট করতে অভিযুক্ত স্বামী স্ত্রীর মাথা রান্নার হাঁড়িতে রাখেন।

- Advertisement -

প্রায় দেড় মাস আগে নারায়ণপল্লি এলাকায় একটি বাড়ি ভাড়া করেন রাহুল কুন্ডু। তার সঙ্গে থাকতেন স্ত্রী সোনালি কুন্ডু এবং তাদের সাত বছরের মেয়ে। রাহুল শিবমন্দির এলাকায় একটি কাঠের দোকানে পালিশের কাজ করতেন।

প্রতিবেশীরা জানান, তাদের মধ্যে প্রায় ঝগড়া হত। স্ত্রীর বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক রয়েছে- এ সন্দেহে রাহুল তাকে কথা শোনাতেন। গত রবিবার রাতেও স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া হয়।

অভিযোগ, সেই সময় হাতুড়ি দিয়ে স্ত্রীর মাথায় আঘাত করেন রাহুল। সেখানেই মৃত্যু হয় তার। রক্ত যাতে মেঝেতে না ছড়িয়ে পড়ে তাই হাঁড়ির ভিতরে স্ত্রীর মাথা ঢুকিয়ে রাখেন রাহুল। এরপর সোমবার সকালেও দিব্যি ঘুরে বেড়ান অভিযুক্ত।

কয়েকজন পরিচিত তার স্ত্রীর কথা জিজ্ঞেস করায় নানা অজুহাতে পাশ পাটিয়ে যান রাহুল। কিন্তু সন্ধ্যা নাগাদ রাহুল আরেক ভাড়াটিয়াকে স্ত্রীকে মেরে ফেলার কথা জানান ।

রাহুল বলেন, ‘আমাদের মধ্যে ঝগড়া হয়েছিল। তারপর ওকে মেরে ফেলেছি।’ এসব শুনে ঘাবড়ে যান ওই ভাড়াটিয়া। তিনি স্থানীয় পঞ্চায়েত সদস্যকে বিষয়টি জানান। সেখান থেকে খবর যায় পুলিশের কাছে।

এই ঘটনা প্রসঙ্গে শিলিগুড়ি পুলিশ কমিশনারেটের এডিসিপি শুভেন্দ্র কুমার বলেন, ‘দম্পতির মধ্যে ঝগড়ার জেরেই এই ঘটনা বলে অনুমান করছে পুলিশ। স্বামীকে ইতিমধ্যে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলেই জানা যাবে কী কারণে এই ঘটনা ঘটল।’

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles