15 C
Toronto
শনিবার, মে ১৮, ২০২৪

গাধা কি সত্যিই বোকা? যা বলছে গবেষনা

গাধা কি সত্যিই বোকা? যা বলছে গবেষনা

গাধারা কি হাসির পাত্র? বোকা অর্থেও গাধা শব্দটি ব্যবহার করা হয়। এমনকি যাদের একটু বুদ্ধি কম, তাদেরকেও অনেকে গাধা বলে থাকেন। বিজ্ঞানীরা বলেন, গাধার গাধামি নিয়ে যত গল্প প্রচলিত আছে, তার মূলে আছে গাধা সম্পর্কে সঠিক জ্ঞানের অভাব।

- Advertisement -

গবেষণা বলছে, গাধা কিন্তু মোটেও বোকা নয়! আর পাঁচটা প্রাণীর চেয়ে অনেক বেশি বুদ্ধিমান। গাধার রয়েছে অবিশ্বাস্য স্মৃতিশক্তি। ২৫ বছর আগে দেখা এলাকা, এমনকি বহু বছর আগে দেখা গাধাদের তারা সহজেই চিনতে পারে। পাশাপাশি, গাধা প্রচণ্ড জেদি, আত্মরক্ষা করার প্রবল ক্ষমতা রাখে।

গাধা প্রাগৈতিহাসিককাল থেকেই জানমাল বহন ও গাড়ি টানার কাজে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। ঘোড়ার মতো গাধারা দ্রুতগামী নয় বটে, কিন্তু তারা দীর্ঘজীবী, ঘোড়ার চেয়ে কম ব্যয়বহুল, বেশি ধৈর্যশীল, খারাপ রাস্তায় বেশি চটপটে। গাধার সমস্যা হলো, নিজের ভালোটাও সে বেশ বোঝে। গাধাকে ভয় দেখিয়ে বা জোর করে এমন রাস্তায় নিয়ে যাওয়া যাবে না, যে রাস্তায় যাওয়াটাকে গাধা নিজে মনে করে বিপজ্জনক।

আরও পড়ুন :: ধূমপানের অভ্যাস ছাড়তে চান? জেনে নিন উপায়

কোনো ঘটনায় গাধা সহজে চমকে ওঠে না। এরা প্রখর কৌতূহলী। গাধার চিন্তাধারা ঘোড়ার থেকে স্বাধীন। একটি গাধা মরু পরিবেশে ৬০ মাইল দূরে থেকে অন্য গাধার সঙ্গে যোগাযোগ রাখতে পারে। ঘোড়ার থেকে তাদের আছে অনেক বড় কান, যা তাদের শরীর শীতল রাখে। গাধা নেকড়ে, বাঘ বা অন্য বন্য জন্তুদের হাত থেকে বাকি পশুদের রক্ষা করে বিশেষ সংকেত দিয়ে। গাধা গবাদি পশু, ভেড়া এবং ছাগলকে পাহারা দেয়।

মিশরে ঐতিহ্যবাহী স্থাপত্যগুলোর অধিকাংশ ধাতু বহন করা হয়েছিল গাধার মাধ্যমে। গ্রিসে সংকীর্ণ পথের ওপর কাজ করার জন্যও গাধা ব্যবহার করা হয়। রোমান আর্মিরা গাধাকে কৃষিপালিত ও পণ্য বহনকারী প্রাণী হিসেবে ব্যবহার করতো। ভারতের রাজস্থান ও জয়পুরের অন্যতম বাহন গাধা। দুর্গম পাহাড়ি এলাকায় জিনিসপত্র নিয়ে এরা সহজে চলাফেরা করতে পারে।

তথ্যসূত্র: নিউজ এইটিন

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles