5.2 C
Toronto
মঙ্গলবার, নভেম্বর ২৯, ২০২২

রওশন এরশাদের ডাকা জাতীয় সম্মেলন স্থগিত

রওশন এরশাদের ডাকা জাতীয় সম্মেলন স্থগিত

জাতীয় সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা ও জাতীয় পার্টির (জাপা) প্রধান পৃষ্ঠপোষক রওশন এরশাদের ডাকা আগামী ২৬ নভেম্বর অনুষ্ঠেয় কাউন্সিল স্থগিত করা হয়েছে।

- Advertisement -

রোববার (৩০ অক্টোবর) জাপার ১০ম জাতীয় সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির সদস্য সচিব গোলাম মসীহ্ বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেছেন।

কাউন্সিল স্থগিতের বিষয় জানতে চাইলে রওশনপন্থি জাপা নেতা ইকবাল হোসেন রাজু জাগো নিউজকে বলেন, রোববার বিকেলে এক বৈঠকে এ সিদ্ধন্ত হয়েছে। সার্বিক দিক বিবেচনায় কাউন্সিলের তারিখ স্থগিত করা হয়েছে। তবে, কার্যক্রম চলমান থাকবে। জেলা কমিটিগুলো কার্যকর করার জন্য কাউন্সিল আপাতত স্থগিত করা হয়েছে।

গোলাম মসীহ স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়— ‌‘সবার অবগতির জন্য জানানো হচ্ছে যে, জাতীয় পার্টির (জাপা) প্রধান পৃষ্ঠপোষক ও জাতীয় সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা বেগম রওশন এরশাদ আহুত আগামী ২৬ নভেম্বর পার্টির দশম জাতীয় সম্মেলন স্থগিত করা হলো। রোববার সন্ধ্যায় গুলশানে দলের কাউন্সিল সমন্বয় কার্যালয়ে সম্মেলন প্রস্তুতির কার্যনির্বাহী কমিটির জরুরি বৈঠক শেষে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। যা এরই মধ্যে সম্মেলন সংশ্লিষ্ট সব নেতাকর্মীদের অবহিত করা হয়েছে।’ এর আগে গত ২০ আগস্ট হঠাৎ করেই কাউন্সিল ডেকে বসেন রওশন এরশাদ।

রওশন এরশাদের ডাকা জাতীয় সম্মেলন স্থগিত

রওশন এরশাদের ডাকা সম্মেলনের প্রস্তুতি সমন্বয়ের জন্য দলের ছয়জন কো-চেয়ারম্যানকে যুগ্ম-আহ্বায়ক করা হয়। তারা হলেন— দলের মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু, ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, রুহুল আমিন হাওলাদার, কাজী ফিরোজ রশীদ, আবু হোসেন বাবলা ও সালমা ইসলাম।

কাউন্সিল ডাকার পরদিনই জাতীয় পার্টির সংসদীয় দলের সভা ডেকে রওশন এরশাদকে বিরোধীদলীয় নেতার পদ থেকে সরিয়ে জাপার চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা জি এম কাদেরকে স্থলাভিষিক্ত করার সিদ্ধান্ত হয়। সেই সভায় মসিউর রহমানও অংশ নেন ও সভার কার্যবিবরণীতে সই করেন। পরে তার নেতৃত্বেই সংসদীয় দলের সিদ্ধান্ত স্পিকারের কাছে পৌঁছানো হয়। কিন্তু দলীয় সিদ্ধান্ত এখনো কার্যকর হয়নি সংসদে।

এ ইস্যুতে প্রকাশ্যে মন্তব্য করায় গত ১৪ সেপ্টেম্বর মসিউর রহমান রাঙ্গাকে পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্যসহ সব পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়। দলের চেয়ারম্যান জিএম কাদের গঠনতন্ত্রের ক্ষমতাবলে তাকে অব্যাহতি দেন। সেই আদেশ এরই মধ্যে কার্যকরও হয়েছে।

গত ২৮ অক্টোবর দলীয় পদের পর এবার বিরোধীদলীয় চিফ হুইপের পদ থেকে মসিউর রহমান রাঙ্গাকে অব্যাহতি দেয় জাপা। তবে জাপার দাবির পরিপ্রেক্ষিতে সংসদে এ বিষয় সুরাহা না হওয়ায় সংসদ বর্জনের সিদ্ধান্ত নেয় জাপা।

রোববার এক বিজ্ঞপ্তিতে দলটি জানায়— জাতীয় পার্টি (জাপা) চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা গোলাম মোহাম্মদ কাদেরকে বিরোধীদলীয় নেতা হিসেবে গেজেট প্রকাশ না করা পর্যন্ত দলের সংসদ সদস্যরা জাতীয় সংসদে যাবেন না।

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles