5.2 C
Toronto
মঙ্গলবার, নভেম্বর ২৯, ২০২২

পুলিশের ওপর মৌমাছির ঝাঁক ছেড়ে দিলেন এক নারী

পুলিশের ওপর মৌমাছির ঝাঁক ছেড়ে দিলেন এক নারী
ছবি : হ্যাম্পডেন কাউন্টি শেরিফ কার্যালয়

ররি উডস, যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটসে বসবাসকারী ৫৫ বছর বয়সী এক নারী। হ্যাম্পডেন কাউন্টির লংমেডো শহরে পুলিশ উচ্ছেদের নোটিশ দিতে গেলে তিনি ক্ষীপ্ত হয়ে পুলিশের দলটির ওপর মৌমাছির ঝাঁক ছেড়ে দেন। পুলিশের ওপর হামলার একাধিক অভিযোগে তাকে গ্রেপ্তার করে আদালতে হাজির করা হয়।

ম্যাস লাইভ জানিয়েছে, ১২ অক্টোবর স্প্রিংফিল্ড ডিস্ট্রিক্ট আদালতে উডস নিজেকে নির্দোষ দাবি করেছেন।

- Advertisement -

এ সময় আদালত তাকে জামিন ছাড়া মুক্তি দেন। তবে পরবর্তী শুনানিতে তাকে আবার আদালতে হাজির হতে হবে।
হ্যাম্পডেন কাউন্টি শেরিফ কার্যালয়ের প্রতিবেদন অনুসারে, ১২ অক্টোবর কর্মকর্তারা আদালতের জারি করা উচ্ছেদের নোটিশ দিতে লংমেডোতে যান। এ সময় সেখানে থাকা কয়েকজন প্রতিবাদ করতে শুরু করে। এর কিছুক্ষণ পর অন্য এলাকার এক নারী গাড়িতে করে মৌমাছি বহনকারী একটি ট্রেলার নিয়ে ঘটনাস্থলে আসেন। তিনি ট্রেলারটি ঝাঁকাতে থাকলে এক সময় ট্রেলারটির কভার ভেঙে যায় এবং শত শত মৌমাছির ঝাঁক বের হয়ে আসে।

ওই নারী নিজেকে রক্ষা করার জন্য মৌমাছি পালনকারীদের সুরক্ষা পোশাক পরে ছিলেন। এ সময় কয়েকজন কর্মকর্তাকে মৌমাছিরা কামড় দেয়, যাদের মধ্যে কয়েক জনের মৌমাছিতে অ্যালার্জি রয়েছে।

কর্মকর্তাদের অ্যালার্জি থাকার ব্যাপারটি উডসকে বলা হলে তিনি উপহাস করে বলেন, ‘ওহ, আপনাদের অ্যালার্জি আছে? খুব ভালো!’ পরে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

টাইম জানিয়েছে, উডস এবং অন্য প্রতিবাদকারীরা যুক্তি দিয়েছিল যে তারা অন্যায় ভাবে উচ্ছেদ কার্যক্রম প্রতিরোধ করার চেষ্টা করছিলেন।

ম্যাসাচুসেটসে প্রিডেটরি লেন্ডিং নিয়ে কাজ করা একটি সংগঠনের সাথে জড়িত গ্রেস রস বলেছেন, পরদিন বাড়ির মালিক অ্যাল্টন কিং তার দেউলিয়া থাকার প্রমাণ আদালতে পেশ করেন। এ অবস্থায় এসব বন্ধ থাকা উচিত ছিল।

হ্যাম্পডেন কাউন্টি শেরিফের ফেসবুকে প্রকাশিত একটি দীর্ঘ পোস্টে সেখানকার সিভিল প্রসেস কার্যালয়ের উপ-প্রধান রবার্ট হফম্যানকে উদ্ধৃত করে বলা হয়েছে, ‘অনেক বছর ধরে হ্যাম্পডেন কাউন্টি শেরিফের সিভিল প্রসেস ডিভিশনে নেতৃত্ব দেওয়ার সময় আমি কখনও এমন কিছু দেখিনি। আমি আশা করি যে প্রতিবাদকারীরা ভবিষ্যতে এ ধরনের কাজ করার আগে পুনরায় ভাববে। কারণ, তাদের বিরুদ্ধে মামলা করা হবে। ‘

কর্মকর্তাদের সাথে আরো খারাপ কিছু ঘটলে উডস গুরুতর অভিযোগের মুখোমুখি হতেন বলে জানিয়েছেন হ্যাম্পডেন কাউন্টি শেরিফ নিক কোকচি। তিনি বলেছেন, ‘আমাদের এক কর্মীকে আহত হয়ে হাসপাতালে যেতে হয়েছে। সৌভাগ্যবশত, সে সুস্থ আছে। নাহলে ওই নারীর বিরুদ্ধে হত্যার অভিযোগ আনা হত। আমি জনগনের শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ করার অধিকারকে সমর্থন করি। কিন্তু আপনি যখন সীমা অতিক্রম করে আমার কর্মীকে এবং জনসাধারণকে বিপদে ফেলবেন, আপনি প্রতিশ্রুতি দিচ্ছি যে আপনাকে গ্রেপ্তার করা হবে। ‘

সূত্র : এনডিটিভি

- Advertisement -

Related Articles

Latest Articles