মানহানি মামলায় খালেদা জিয়ার স্থায়ী জামিন

১২ মার্চ ২০২০


মানহানি মামলায় খালেদা জিয়ার স্থায়ী জামিন

মানহানির অভিযোগে নড়াইলে করা এক মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার স্থায়ী জামিন মিলেছে। জামিন প্রশ্নে জারি করা রুল যথাযথ করে এ রায় দিয়েছেন হাইকোর্ট। ফলে এ মামলায় তিনি এখন থেকে জামিনে থাকবেন বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা। বৃহস্পতিবার (১২ মার্চ) বিচারপতি আবু জাফর সিদ্দিকী ও  বিচারপতি এএসএম আব্দুল মবীনের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ রায় দেন।

আদালতে খালেদা জিয়ার পক্ষে ছিলেন আইনজীবী এ জে মোহাম্মদ আলী ও ব্যারিস্টার কায়সার কামাল। তিনি বলেন, ২০১৮  সালের ১৩ আগস্ট তাকে এ মামলায় অন্তর্বর্তীকালীন জামিন দিয়ে রুল জারি করেছিলেন হাইকোর্ট। বৃহস্পতিবার রুল অ্যাবসুলেট (যথাযথ) করেছেন। ফলে এ মামলায় তিনি স্থায়ী জামিনে থাকবেন।

উল্লেখ্য, মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের সংখ্যা নিয়ে মন্তব্য করায় মানহানির অভিযোগে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে ২০১৫ সালের ২৪ ডিসেম্বর নড়াইল সদর আমলি আদালতে মামলাটি করেন জেলার নড়াগাতী থানার চাপাইল গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সন্তান রায়হান ফারুকী ইমাম। পরে ২০১৮ সালের ৫ আগস্ট এ মামলায় নড়াইলের আদালতে খালেদা জিয়ার জামিন নামঞ্জুর হয়। এরপর ওই মামলায় জামিন চেয়ে খালেদা জিয়া একই বছরের ৯ আগস্ট হাইকোর্টে আবেদন করেছিলেন।

২০১৮ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি দুর্নীতির মামলায় দণ্ডিত হয়ে কারাবন্দি রয়েছেন খালেদা জিয়া।