'অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশে পূজা ও নির্বাচন একই দিনে হতে পারে না'

১৫ জানুয়ারী ২০২০


'অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশে পূজা ও নির্বাচন একই দিনে হতে পারে না'

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীদের যেকোনো আন্দোলনে তাদের পাশে থেকে রাস্তায় থাকেন ভিপি নুর। অসুস্থ হওয়া সত্ত্বেও বিভিন্ন আন্দোলনে শিক্ষার্থীদের পাশে তাকে দেখা গেছে। কিন্তু সরস্বতী পূজার দিনে সিটি নির্বাচন পেছানোর আন্দোলনে শিক্ষার্থীদের পাশে দেখা যাচ্ছে না ভিপি নুরকে।

তবে বুধবার (১৫ ডিসেম্বর) বিকেলে ডাকসু ভবনে নিজের কক্ষে সাংবাদিকরা তাকে আন্দোলন প্রসঙ্গে প্রশ্ন করলে তিনি জবাবে বলেন, অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশে পূজা ও নির্বাচন একই দিনে হতে পারে না। ষড়যন্ত্র বা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির জন্যই পরিকল্পিতভাবে পূজার দিনে নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করা হয়েছে।

তিনি বলেন, সরস্বতীপূজার দিনে ঢাকা সিটি নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা সরকারের একটি নীলনকশা। বর্তমান নতজানু নির্বাচন কমিশন সরকারের কনসার্ন ছাড়া নিশ্চয়ই নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করেনি! কোনো ষড়যন্ত্র বা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির জন্যই পরিকল্পনা করে এ কাজটি করা হয়েছে। বাংলাদেশ অবশ্যই অসাম্প্রদায়িক চেতনার একটি দেশ। সরস্বতীপূজা সনাতন ধর্মের একটি বড় উৎসব। এই দিনে নির্বাচন হতে পারে না। নির্বাচনের তারিখ এগিয়ে বা পিছিয়ে দেওয়া উচিত।

নুরুল হক বলেন, ঢাকার দুই সিটির নির্বাচনের দিন মানুষ ভোট দেবে, নাকি তাদের ধর্মীয় অনুষ্ঠান পালন করবে? তাই আমাদের দাবি, নির্বাচনের তারিখ পরিবর্তন করতে হবে। হয় এগোতে হবে, নয়তো পেছাতে হবে। আমরা মনে করি, এখানে সরকার ও নির্বাচন কমিশনের কোনো ষড়যন্ত্র বা কারসাজি রয়েছে। পূজার দিনে নির্বাচনের তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে পরিকল্পিতভাবে।