গণতন্ত্র অবরুদ্ধ করে দেশ শাসন করা যাবে না: মির্জা ফখরুল

৫ ডিসেম্বর ২০১৯


গণতন্ত্র অবরুদ্ধ করে দেশ শাসন করা যাবে না: মির্জা ফখরুল

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সরকারকে উদ্দেশ করে বলেছেন, গণতন্ত্রকে অবরুদ্ধ করে দীর্ঘ সময় দেশশাসন করা যাবে না। সরকার এ সত্যটি যত দ্রুত অনুধাবন করতে সক্ষম হবেন তাদের জন্য সেটিই হবে মঙ্গল। বুধবার চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গাজী মিরাজুল্লাহকে গ্রেপ্তার ও অন্য ১৭জন নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মিথ্যা ও গায়েবি মামলা দায়েরের ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করে গণমাধ্যমে দেওয়া এক বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, অনৈতিক কর্মকাণ্ড ও ভয়াবহ দুঃশাসনের কারণে ভয়াবহ ইমেজ সংকটে নিপতিত বর্তমান সরকারের ফ্যাসিবাদী আচরণ তাদের ক্রমেই আরও জনবিচ্ছিন্ন করে তুলছে। সরকারের এই  বোধোদয়ের এখনো সময় আছে।

তিনি বলেন, সরকার দেশের আইনকানুন ও বিচারিক ব্যবস্থাকে করায়ত্তে নিয়ে বিএনপি নেতাকর্মীদের কারাদণ্ডে দণ্ডিত করছে। রাজনৈতিক বন্দিদের সময়মতো মুক্তি না দিয়ে নানা টালবাহানায় তাদের আটকে রাখছে। এরপরেও কেউ জামিন নিয়ে মুক্তিলাভ করলেও কারাফটক থেকে নিত্যনতুন সাজানো মিথ্যা মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে পুনরায় আটক করে তাদের জেলে পুরছে। বিএনপির এ ধরনের বেআইনি কর্মকাণ্ড  থেকে বারবার সরকারকে সরে আসার আহ্বান জানালেও নিজেদের অিস্তত্বের প্রশ্নে সরকার তাতে কর্ণপাত না করে আরও বেপরোয়া ও হিংস্র হয়ে উঠেছে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, আমরা সাংবিধানিক অধিকার হিসেবে স্বীকৃত রাজনৈতিক কর্মসূচিগুলো শান্তিপূর্ণভাবে পালনের উদ্যোগ নিচ্ছি। দলকে তৃণমূল পর্যায় থেকে পুনর্গঠনের মতো সাংগঠনিক কর্মসূচি নিয়ে এগুচ্ছি। ঠিক এমন সময়ে সরকার বিএনপির বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাদের নিত্যনতুন মিথ্যা মামলায় আটক করছে, মিথ্যা ও গায়েবি মামলা দায়ের করছে, পুরনো মিথ্যা মামলায় চার্জ গঠন করে চার্জশিট প্রদান করছে এবং কারাদণ্ডে দণ্ডিত করছে। এর মূল লক্ষ্যই হলো বিএনপিকে দুর্বল করে কোনোভাবেই সাংগঠনিক কাজ করতে না দেওয়া।