ভাতিজার অভিযোগে চাচা...‌'আমি কাদা ছোড়াছুড়ি করি না, রাজনীতি করি'

২৫ নভেম্বর ২০১৯


ভাতিজার অভিযোগে চাচা...‌'আমি কাদা ছোড়াছুড়ি করি না, রাজনীতি করি'

সাবেক রাষ্ট্রপতি ও জাতীয় পার্টির প্রতিষ্ঠাতা প্রয়াত হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের সাবেক স্ত্রী বিদিশা সিদ্দিক (বিদিশা এরশাদ) ও পুত্র শাহতা জারাব এরিক (এরিক এরশাদ) লাগাতার অভিযোগ করছেন। তাদের অভিযোগ এরশাদের ছোটভাই ও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ কাদের’র (জিএম কাদের) বিরুদ্ধে। তবে কিছুটা পরে হলেও অভিযোগের বিরুদ্ধে নিজের অবস্থানের কথা জানিয়েছেন জিএম কাদের। গতকাল রোববার রাজধানীর বনানীতে দলের চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে এক অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, ‘আমি কাদা ছোড়াছুড়ি করি না, রাজনীতি করি। রাজনীতি করতে গেলে শতভাগ মানুষের সমর্থন পাওয়া যায় না।’

তিনি বলেন, ‘আমাকে নিয়ে কে কী বলেলো তা নিয়ে ভিষণভাবে মগ্ন থাকলে দেশ ও জাতির জন্য কাজ করা আমার জন্য সম্ভব হবে না। আমি সত্য ও ন্যায়ের পথে থেকে দেশ ও মানুষের জন্য কাজ করে যাচ্ছি। দেশের মানুষও আমাকে সেভাবেই গ্রহণ করেছে। সাধারণভাবে ভালো কাজ করতে গেলে, কিছু মানুষ বাঁধা সৃষ্টি করবে। সেগুলো আমরা যথাযথভাবে নিষ্পত্তি করবো।

মৃত্যুর আগে এরশাদ উইল (অসিয়তনামা) করে তার সম্পদের বড় একটি অংশ পুত্র এরিককে দিয়ে যান। একই সঙ্গে সাবেক স্ত্রী বিদিশাকে সম্পত্তি থেকে অবাঞ্ছিত করে গেলেও গেল সপ্তাহে এরশাদের রেখে যাওয়া বারিধারার প্রেসিডেন্ট পার্কের বাসায় যান বিদিশা। প্রেসিডেন্ট পার্কে এ বাসাটি এরিকের নামে দিয়ে গেছেন এরশাদ। বিদিশা অভিযোগ- জিএম কাদের সম্পত্তির লোভে এরিক ও তাকে হুমকিতে ফেলেছেন।

গত শনিবার প্রধানমন্ত্রীকে পাঠানো এরিকের চিঠিতে অভিযোগ করা হয়, জিএম কাদের সম্পদের লোভে তাকে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করেছেন। বর্তমানে বিদিশা এরিকের সঙ্গে প্রেসিডেন্ট পার্কের বাসায় অবস্থান করছেন। ভাতিজার অভিযোগের বিষয়ে সর্বশেষ রোববার জিএম কাদের বলেন, ‘রাজনীতি করতে গেলে অনেক সময় বাইরের মানুষও জীবন দেবে, আবার খুব ঘনিষ্ঠ মানুষও বিরুদ্ধে দাঁড়িয়ে যেতে পারে।’

কাদের দাবি করেন, দেশের তিনটি প্রধান রাজনৈতিক দলের মধ্যে সাধারণ মানুষ জাপার ওপরই আস্থা রাখছে। যারা বিগত দিনে দল ছেড়ে চলে গিয়েছিল, তারা প্রত্যাশিত রাজনীতি না পেয়ে আবারও ফিরে আসছে। সবাইকে নিয়ে জাপা এরশাদের স্বপ্ন বাস্তবায়ন করবে।

সম্প্রতি গণমাধ্যমে বিদিশা বলেন, ‘জিএম কাদের সম্পত্তির লোভে এরিক ও তার সঙ্গে খারাপ আচরণ করছেন। তারা চাচ্ছেন না এরিক দেশের মানুষের জন্য কাজ করুক। এরকি এই মুহূর্তে কিছুটা অসুস্থ। আমি আমার ছেলের যত্ন ঠিক মতো নিতে পারলে সে সুস্থ হয়ে মানুষের জন্য কাজ করতে পারবে। আমি তো ওকে কারও কাছ থেকে দূরে রাখিনি। এরিক রংপুরের মানুষের সঙ্গে, মিডিয়ার সঙ্গে কথা বলছে। আমি চাই আমার ছেলে সবার মধ্যে থেকে সুস্থ হয়ে উঠুক।’

জিএম কাদের ধ্বংসাত্মক কাজ করছেন উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘জিএম কাদের সাহেব কোন কিছুই ভালো রাখতে পারেন না। সে যেন দলের চেয়ারম্যান হন এর জন্য আমি এরিকের বাবাকে (এরশাদ) বার বার বলেছি। কিন্তু এখন তিনি তা মনে রাখেননি। আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছেন, আমার ছেলের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছেন। তিনি কোন কিছুই ভালো রাখতে পারেন না এটা এরশাদ সাহেবই আমাকে বলেছেন।’