তামিমের রেকর্ড, সঙ্গে বাংলাদেশেরও
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট


তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের শেষ ওয়ানডেতে ক্যারিবীয়দের ১৮ রানে হারিয়ে নয় বছর পর বিদেশের মাটিতে সিরিজ জয় করেছে বাংলাদেশ। টেস্ট সিরিজে যাচ্ছেতাই খেলে সিরিজ হারানোর পর শঙ্কা ছিল ওয়ানডে সিরিজে কেমন খেলে টাইগাররা। সিরিজ শুরুর আগেই ওয়ানডে সিরিজ যে প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ হবে তার আভাস দিয়ে রেখেছিল প্রস্তুতি ম্যাচে জয় তুলে নেয়ার পর। তারেই প্রতিফলন দেখা গেল প্রথম ওয়ানডেতে।তবে সেন্ট কিটসে সেই সুযোগ কাজে লাগানোর পালা।

অঘোষিত ফাইনালে ক্যারিবীয়দের ৩০২ রানের লক্ষ্য দিয়েছে বাংলাদেশ। নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৬ উইকেটে ৩০১ রান করে মাশরাফির দল। এদিন সফরের দ্বিতীয় ও ওয়ানডে ক্যারিয়ারে নিজের একাদশ সেঞ্চুরি তুলে নেন তামিম ইকবাল। এদিনও সাকিব আল হাসানের সঙ্গে দারুণ জুটি হয়েছে তামিমের। দ্বিতীয় উইকেটে ৮১ রান যোগ করেন এই দুজন। সাকিব ৩৭ রান করেন। এদিন দারুণ ব্যাট করলেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। অপরাজিত ৬৭ রানের ইনিংস খেলেন তিনি। ছয় নম্বরে নেমে ২৫ বলে ৩৬ রানের ইনিংস খেলেন মাশরাফী বিন মোর্ত্তজা।

এদিকে এ ম্যাচ থেকে যত রেকর্ড করা সম্ভব তার প্রায় সবই তামিম একাই করে ফেলেছেন। বাংলাদেশের একমাত্র ব্যাটসম্যান হিসেবে দুটি ভিন্ন সিরিজে একাধিক সেঞ্চুরি হয়েছে। অবশ্য অন্য রেকর্ডটি সেঞ্চুরি নয়, কোয়ার্টার সেঞ্চুরির আগেই হয়ে গেছে তার। তিন ম্যাচের সিরিজে ওয়েস্ট ইন্ডিজে সফরকারী দলের হয়ে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ডটি ছিল ড্যারেন লেম্যানের (২০৫)। আগের দুই ম্যাচে ১৮৪ রান করা তামিম সেটা করে ফেলেছেন ইনিংসের দশম ওভারেই। এছাড়া ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে নিজেদের সর্বোচ্চ রানের (২৯২) রেকর্ডটিও পেরিয়ে গেল বাংলাদেশ।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

বাংলাদেশ: ৫০ ওভারে ৩০১/৬ (তামিম ১০৩, এনামুল ১০, সাকিব ৩৭, মুশফিক ১২, মাহমুদউল্লাহ ৬৭*, মাশরাফি ৩৬, সাব্বির ১২, মোসাদ্দেক ১১*; কট্রেল ১/৫৯, হোল্ডার ২/৫৫, বিশু ১/৪২, পল ০/৭৭, নার্স ২/৫৩, গেইল ০/১৪)

 


২৯ জুলাই, ২০১৮ ১৬:১০:৪৩