‘ঘরের মাঠে বাংলাদেশ ভারতের মতো শক্তিশালী’
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম
অ+ অ-প্রিন্ট


সবকিছু ঠিক থাকলে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে আগস্টে বাংলাদেশ সফরে আসবে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দল। সফরটি উদ্দেশ্য করে ১৩ সদস্যের দলও ঘোষণা করেছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। প্রাথমিক দল ঘোষণা করেছে বাংলাদেশও। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিরিজ ও দক্ষিণ আফ্রিকার সফরের  জন্য বৃহস্পতিবার ২৯ সদস্যের প্রাথমিক দল ঘোষণা করে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। অস্ট্রেলিয়া-বাংলাদেশ সিরিজটি বেশ আলোচিত একটি সিরিজই। মূলত ২০১৫ সালে এই সিরিজ হওয়ার কথা থাকলেও সেবার নিরাপত্তার অজুহাতে অজিরা বাংলাদেশে আসেনি। তবে এখনো পর্যন্ত যে আবহ তাতে অস্ট্রেলিয়া এবার আসছে- এটা বলাই যায়। আর এবারের বাংলাদেশ সফরকে গুরুত্বের সঙ্গেই নিচ্ছে অজি ক্রিকেটাররা। অজি ক্রিকেটার ওসমান খাওয়াজা যেমন বাংলাদেশ সফরকে চ্যালেঞ্জিং উল্লেখ করে বলছেন, বাংলাদেশ ভারতেই মতোই শক্তিশালী দল।  

বাংলাদেশ সফরের আগে অস্ট্রেলিয়া ‘এ’ দল  দক্ষিণ আফ্রিকা সফর করবে। এই সফরে অস্ট্রেলিয়া ‘এ’ দলকে নেতৃত্ব দেবেন পাকিস্তান বংশভূত ওসমান খাওয়াজা। যিনি জানুয়ারিতে পাকিস্তানের বিপক্ষে সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন। বাংলাদেশকে কিছুতেই হালকা ভাবে নেওয়ার কারণ নেই উল্লেখ করে ৩০ বছর বয়সি খাওয়াজা বলেন, ‘ঘরের মাঠে তারা ভারতের মতোই শক্তিশালি। তাদের উইকেট অনেকটাই ভারতের মতো। সফরটা তাই চ্যালেঞ্জিংই। মানুষ বাংলাদেশকে নিয়ে ভাবে, তাদের বিপক্ষে জয়টা খুব সহজ। এটা শুধুই বাংলাদেশ। কিন্তু ব্যপারটা আর সেই অবস্থায় নেই। তারা নিজেদের মাঠে খুবই শক্তিশালী। তাই একটি প্রতিদ্বন্দিতাপূর্ণ সিরিজই হতে যাচ্ছে।’

২০০৬ সালে বাংলাদেশ ও অস্ট্রেলিয়া পরস্পরের সঙ্গে সর্বশেষ টেস্ট খেলেছে। সেবার রিকি পন্টিংয়ের অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ সফর করে। ফতুল্লায় অনুষ্ঠিত সিরিজের প্রথম টেস্টে বাংলাদেশ প্রায় জয়ের দারপ্রান্তে পৌছে গিয়েছিল। দ্বিতীয় টেস্টে অবশ্য ইনিংস ব্যবধানে হারে বাংলাদেশ। সেই ম্যাচে ডাবল সেঞ্চুরি হাঁকান অজি ফাস্ট বোলার জেসন গিলেস্পি। সেই গিলেস্পিও বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া সিরিজটি নিয়ে উচ্ছ্বসিত, ‘আমি তাদের (অস্ট্রেলিয়া) সেখানে (বাংলাদেশে) দেখতে উন্মুখ হয়ে আছি। এবং সফল একটি বাংলাদেশ সফর আশা করছি।’

গিলেস্পি ক্রিকেটের জন্য বাংলাদেশকে দারুণ একটি জায়গা আখ্যা দিয়ে বলেন, ‘ক্রিকেটের জন্য বাংলাদেশ দারুণ জায়গা। দর্শকরাও দারুণ। সেখানকার দর্শকরা তাদের দলকেই সাপোর্ট করবে। তবে অন্যদলের প্রতিও তারা দারুণ শ্রদ্ধাশীল। সেখানকার দর্শকার অস্টেলিয়ান খেলোয়াড়দেরও দারুণ পছন্দ করে।’


২৩ জুন, ২০১৭ ২১:৪১:০৩