বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গে বুদ্ধপূর্ণিমায় জঙ্গি হামলার আশঙ্কা
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম ডেস্ক
অ+ অ-প্রিন্ট
বৌদ্ধপূর্ণিমায় বাংলাদেশ বা ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে আত্মঘাতী হামলার পরিকল্পনা রয়েছে জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস)।

ভারতের কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার (আইবি) বরাত দিয়ে শনিবার এ খবর জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম জি নিউজ।

শ্রীলঙ্কায় সম্প্রতি ধারাবাহিক বিস্ফোরণে প্রাণ হারিয়েছেন দু'শোরও বেশি মানুষ। হামলার দায় নিয়েছে আইএস। সেই শ্রীলঙ্কায় এবং বাংলাদেশে প্রকাশিত একটি সাপ্তাহিক ট্যাবলয়েডের খবরকে উল্লেখ করে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থার সতর্কবার্তায় বলা হয়েছে, বাংলাদেশ অথবা পশ্চিমবঙ্গে মহিলা জঙ্গিদের সামনে রেখে নাশকতার ছককে বাস্তবায়িত করা হতে পারে। নির্দিষ্ট ভাবে বলা হয়েছে, ১২ মে বুদ্ধপূর্ণিমার দিন বৌদ্ধ মন্দিরে অথবা রমজানে মাসে অন্য কোনো মন্দিরে ভক্ত সেজে ঢুকে হামলা চালানো হতে পারে। এমন কি নিরাপত্তারক্ষীদের নজর এড়াতে গর্ভবতী মহিলা সেজে পেটের মধ্যে বিস্ফোরক লুকিয়ে মন্দিরে ঢোকার মতো নতুন কৌশল জঙ্গিরা নিতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করা হয়েছে।

শ্রীলঙ্কার ধারাবাহিক বিস্ফোরণের ক্ষত শুকোতে না-শুকোতেই 'শিগগিরই আসছি' বলে বাংলায় লেখা একটি পোস্টার দিন কয়েক আগে নিজেদের টেলিগ্রাম মেসেজিং অ্যাপে প্রকাশ করেছিল আইএস। তাতে এমনিতেই আতঙ্ক ছড়িয়েছে বাংলায়। তার মধ্যেই ভারতীয় গোয়েন্দাদের এই সতর্কবার্তা।

আইবি রিপোর্ট থেকে জানা যায়, বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গের ধর্মীয় স্থানগুলিতে, বিশেষ করে হিন্দু ও বৌদ্ধ মন্দিরগুলোতে এ হামলা হতে পারে। ভারতের কেন্দ্রীয় গোয়েন্দাদের পক্ষ থেকে শুক্রবার-ই পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য পুলিস-প্রশাসনকে এ নিয়ে সতর্কবার্তা পাঠানো হয়েছে বলেও ওই প্রতিবেদনে জানিয়েছে জি নিউজ।

রাজ্য পুলিশের বরাত দিয়ে জি-নিউজ বলছে, সতর্কবার্তা পেয়ে এরমধ্যেই পশ্চিমবঙ্গের হিন্দু ও বৌদ্ধ মন্দিরগুলোতে নিরাপত্তা বাড়ানো হয়েছে। পশ্চিমবঙ্গ এবং কলকাতা পুলিশের দুই কর্মকর্তা সতর্কবার্তার সত্যতা স্বীকার করে নিয়ে জানিয়েছেন, রাজধানী কলকাতাসহ রাজ্যের বিভিন্ন বৌদ্ধ মন্দিরে বুদ্ধপূর্ণিমায় যেহেতু প্রচুর ভক্তের সমাগম হয়, তাই সেখানে নিরাপত্তা জোরদার করতে বলা হয়েছে। নিরাপত্তা জোরদার করা হচ্ছে অন্যান্য মন্দিরেও।

 

১২ মে, ২০১৯ ০৩:৩১:২৯