তারেক রহমানের পদত্যাগের প্রশ্নই আসে না :ফখরুল
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম
অ+ অ-প্রিন্ট
মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর
২১শে আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায়ের ভিত্তিতে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের পদত্যাগের প্রশ্নই আসে না বলে জানিয়েছেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। আজ শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায়ে তারেক রহমান দণ্ডিত হওয়ার পর দলের শীর্ষ পদে থাকা নিয়ে বিভিন্ন মহলের প্রশ্নের পরিপ্রেক্ষিতে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এই সংবাদ সম্মেলন করে বিএনপি।

দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ রায়কে রাজনৈতিক উল্লেখ করে সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানের দায়িত্ব থেকে তারেক রহমানের পদত্যাগের বিষয়টি সম্পূর্ণ নাকচ করে দেন।

তিনি বলেন, 'আদালতের এসব পর্যবেক্ষণ এবং ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের রাজনৈতিক বক্তব্য হুবহু এক। নিম্ন আদালতের দেয়া রায়কে যখন আমরা রাজনৈতিক প্রতিহিংসার প্রতিফলন এবং বিএনপিকে দুর্বল করার অসৎ উদ্দেশ্য বলছি তখন সেই রায়ের ভিত্তিতে আমাদের নেতা তারেক রহমানের পদত্যাগের প্রশ্নই আসে না।'

এ সময় বিভিন্ন যুক্তি তুলে ধরে রায়ের পর্যবেক্ষণ নিয়ে প্রশ্ন তুলেন মির্জা ফখরুল। তিনি বলেন, 'বিএনপির আমলে সংঘটিত হত্যাকাণ্ডের দায়িত্ব যদি রাষ্ট্রযন্ত্রের হয় তাহলে বর্তমান সরকারের শাসনামলে পিলখানায় বিডিআর সদর দপ্তরে সংঘটিত হত্যাকাণ্ড, হলি আর্টিজান হত্যাকাণ্ডসহ অসংখ্য সাধারণ মানুষের হত্যাকাণ্ডের দায় ক্ষমতাসীনদের ওপরই বর্তায়। কাজেই রাষ্ট্রযন্ত্রের সহায়তার হামলা হয়েছে বলে আদালতের যে পর্যবেক্ষণ তা যুক্তিযুক্ত এবং গ্রহণযোগ্য নয়।'

এদিকে, জাতীয় প্রেসক্লাবে এক আলোচনা সভায় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেন, জনগণ এ রায় প্রত্যাখ্যান করেছে বিধায় তা দলের কাছে গুরুত্বহীন। জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়া তার গতিতেই চলবে দাবি করে শিগগিরই আন্দোলনের কাঠামো ও রূপরেখা দয়া হবে বলেও জানান তিনি। সরকারের ষড়যন্ত্রের কারণে আইনি প্রক্রিয়ায় বেগম জিয়ার মুক্তি সম্ভব নয় দাবি করে রাজপথেই এর সমাধানের কথা বলেন মওদুদ আহমদ।

 

১২ অক্টোবর, ২০১৮ ২৩:৪৩:৩৪