কামাল হোসেনের বাসায় আজ বসছে ‘গুরুত্বপূর্ণ’ বৈঠক
দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম
অ+ অ-প্রিন্ট
গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন
ভবিষ্যৎ রাজনীতির গুণগত পরিবর্তন ও গ্রহণযোগ্য জাতীয় নির্বাচন আদায়ের দাবি সামনে রেখে বৃহত্তর জাতীয় ঐক্য গঠন প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে আজ একসঙ্গে বসতে পারেন বিকল্পধারা বাংলাদেশের চেয়ারম্যান অধ্যাপক একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী ও গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন। আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাতটায় ড.কামাল হোসেনের বেইলী রোডের বাসায় গণফোরাম নেতাদের সঙ্গে বৈঠকে যুক্তফ্রন্টের অংশীদার জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল জেএসডি’র সভাপতি আ স ম আবদুর রব ও নাগরিক ঐক্যের মাহমুদুর রহমান মান্নাও অংশ নেবেন। বৈঠক থেকে জাতীয় ঐক্যের বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত আসতে পারে বলে নেতারা জানিয়েছেন।

জাতীয় ঐক্য গড়তে বেশ কিছুদিন ধরে যুক্তফ্রন্টের ব্যানারে অধ্যাপক বদরুদ্দোজা চৌধুরী, আ স ম আবদুর রব ও মাহমুদুর রহমান মান্না চেষ্টা চালিয়ে আসছিলেন। অন্যদিকে গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেনও জাতীয় ঐক্যের লক্ষ্য নিয়ে কাজ করছিলেন। এ ঐক্য প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে গত ১৯শে আগস্ট বিকল্প ধারার মহাসচিব মেজর অব. আবদুল মান্নানের বাসায় বৈঠক করেন যুক্তফ্রন্ট ও গণফোরাম নেতারা। এ বৈঠকে আরো কয়েকজন রাজনৈতিক নেতা অংশ নেন। এর আগে গত নভেম্বরে আওয়ামী লীগ এবং বিএনপির বাইরে তৃতীয় শক্তি হওয়ার ঘোষণা নিয়ে বদরুদ্দোজা চৌধুরীর বিকল্প ধারার, নাগরিক ঐক্যের মাহমুদুর রহমান মান্না, আবদুল কাদের সিদ্দিকীর কৃষক শ্রমিক জনতা লীগ এবং আ স ম আবদুর রবের জেএসডি মিলে গঠন হয় যুক্তফ্রন্ট।

এই জোটে থাকার কথা ছিল কামাল হোসেনেরও। তবে তিনি ছিলেন বিদেশে। আর তাকে বাদ দিয়ে জোটের ঘোষণা দেয়াটাকে স্বাভাবিকভাবে নেননি গণফোরাম নেতা। আর ড. কামাল যুক্তফ্রন্টে না থাকায় পরে জোট থেকে বেরিয়ে যান কাদের সিদ্দিকীও। তিনি আবার আওয়ামী লীগের সঙ্গে জোট গঠন নিয়ে আলোচনায় রয়েছেন।

এদিকে নির্বাচন ঘিরে চারদিকেই ছোট–বড় দলগুলো মিলে জোট করার তোড়জোড় শুরু করেছে। সেখানে আওয়ামী লীগ বা বিএনপি উভয়েই বিভিন্ন দিকে আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছে। যুক্তফ্রন্ট ও গণফোরাম মিলে বিএনপির সঙ্গে একটি জাতীয় ঐক্য গড়ার আলোচনা চলে আসছে অনেক দিন থেকেই। এই আগস্টেই তার একটি ঘোষণা আসার কথা ছিল। তবে আসন ভাগাভাগি ও ছোট দলগুলোর নানান শর্তে বিএনপির সঙ্গে পরবর্তী সময়ে আর আলোচনা এগোয়নি। একাদশ জাতীয় নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার আগে হাতে আছে শুধু সেপ্টেম্বর মাস। মাঝে কিছুটা ঝিমিয়ে গেলেও ঈদের আগ দিয়ে বিভিন্ন দল আবার তৎপর হয়ে হয়ে ওঠে।

২৮ আগস্ট, ২০১৮ ১২:২৮:২৫